adimage

২১ ফেব্রুয়ারী ২০১৮
সকাল ০৫:৩৫, বুধবার

৬ বছরের শিশুকে ধর্ষণের পর হত্যা, পাকিস্তানের কাসুরে বিক্ষোভ চলছে

আপডেট  08:18 PM, জানুয়ারী ১১ ২০১৮   Posted in : আন্তর্জাতিক    

৬বছরেরশিশুকেধর্ষণেরপরহত্যা,পাকিস্তানেরকাসুরেবিক্ষোভচলছে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ১২ জানুয়ারি : পাকিস্তানের পাঞ্জাব প্রদেশের কাসুর এলাকায় ছয় বছরের মেয়েকে ধর্ষণের পর হত্যার ঘটনায় বিক্ষোভ গতকাল বৃহস্পতিবারও অব্যাহত ছিল। দোষীদের শাস্তি নিশ্চিত না হওয়া পর্যন্ত ঘরে ফিরবে না বলে জানিয়েছে বিক্ষোভকারীরা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে হ্যাশ ট্যাগ দিয়ে 'জাস্টিস ফর জয়নাব' স্লোগানে প্রতিবাদ ছড়িয়ে পড়েছে।  মঙ্গলবার জয়নবের মৃতদেহ পাওয়ার পর থেকে সব কাজকর্ম বন্ধ করে বিক্ষোভ চালিয়ে যাচ্ছে এলাকাবাসী। চলমান বিক্ষোভের মধ্যে প্রকাশিত জয়নবের ময়নাতদন্তে শ্বাসরোধে হত্যার কথা বলা হলেও ধর্ষণের ব্যাপারটি স্পষ্ট করা হয়নি।

জয়নব প্রাইভেট পড়তে গিয়ে গত ৪ জানুয়ারি নিখোঁজ হয়। গত মঙ্গলবার আবর্জনার স্তূপে তার লাশ পায় পুলিশ। প্রাথমিক তদন্তের ভিত্তিতে গত বুধবার পুলিশ জানিয়েছিল, শিশুটিকে শ্বাসরোধে মেরে ফেলা হয়েছে। তার ধর্ষিত হওয়ার তথ্য জানার জন্য তারা ময়নাতদন্তের অপেক্ষা করছিল। গতকাল ময়নাতদন্তের প্রতিবেদনে শ্বাসরোধে জয়নবকে হত্যার প্রমাণ পাওয়া গেছে বলে জানানো হয়। তবে ধর্ষণের ব্যাপারটি স্পষ্ট করার পরিবর্তে সংশ্লিষ্ট মেডিক্যাল কর্মকর্তা ড. কুরাতুলাইন আতিক জানান, ‘সম্ভবত’ জয়নব যৌন নিপীড়নের শিকার হয়েছে।

কাসুরে বারবার শিশু অপহরণ ও হত্যার ঘটনায় একটি চক্র জড়িত এবং পুলিশ এ ঘটনায় কোনো পদক্ষেপ নিচ্ছে না, এমন অভিযোগে বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী গতকালও রাস্তায় ছিল। দোষীদের শাস্তি নিশ্চিত না করা পর্যন্ত তারা ঘরে ফিরবে না, এমন প্রত্যয় নিয়ে তারা বিক্ষোভ চালিয়ে যাচ্ছে। গত বুধবারের বিক্ষোভে পুলিশের গুলিতে দুজন নিহত ও দুজন আহত হয়। গ্রেপ্তার হয় ছয়জন। এর মধ্যে চারজন বিক্ষোভকারী এবং দুজন পুলিশ। বিক্ষোভকারীদের দিকে গুলি ছোড়ার দায়ে এ দুই পুলিশকে গ্রেপ্তার করা হয়। সূত্র : ডন।


সর্বাধিক পঠিত

Comments

এই পেইজের আরও খবর

মোবাইল অ্যাপ ডাউনলোড করুন

nazrul