২৯ মে ২০১৭
সকাল ৮:০২, সোমবার

চট্টগ্রামে হিউম্যান হলার উল্টে নিহত ২

চট্টগ্রামে হিউম্যান হলার উল্টে নিহত ২ 

01

চট্টগ্রাম, ২৫ মে : চট্টগ্রাম নগরীতে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে হিউম্যান হলার উল্টে দু’জন নিহত ও কমপক্ষে ১২ জন আহত হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার সকাল ৮টার দিকে বন্দর থানার ৫নং গেটের সামনে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

তাৎক্ষণিকভাবে হতাহতদের নাম-পরিচয় জানা যায়নি।

বন্দর থানার এসআই মাসুদুর রহমান জানান, সকালে ইপিজেড-পতেঙ্গাগামী যাত্রীবাহী হিউম্যান হলারটি বন্দর থানার ৫নং গেটের সামনে এলে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সড়কে উল্টে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই দু’জনের মৃত্যু হয়।

আহত ১২ জনকে উদ্ধার করে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

সীতাকুণ্ডে মাইক্রোবাস পুকুরে পড়ে নিহত ৩ 

3562

চট্টগ্রাম, ২০ মে : চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড উপজেলার কুমিরা এলাকায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের পাশে যাত্রীবাহী মাইক্রোবাস খাদে পড়ে নারীসহ তিনজন নিহত হয়েছে। এই ঘটনায় আরো ছয়জন আহত হয়েছে বলে জানা গেছে।

শনিবার সকাল ৭টার দিকে চট্টগ্রামের বহদ্দার হাট এলাকা থেকে মিরসরাই উপজেলায় একটি জানাজায় অংশ নিতে যাওয়ার সময় এই দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- মাইক্রো যাত্রী মো. নাসের (৬০), মো. সোলেয়মান (৫১) ও স্থানীয় বাসিন্দা (পথচারী) মনিকা (৪৭)।

চট্টগ্রাম কুমিরা হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মুনিরুজ্জামান জানান, সকালে সীতাকুণ্ডের কুমিরা বাঁশবাড়িয়া এলাকা অতিক্রম করার সময় একজন পথচারীকে বাঁচাতে গিয়ে মাইক্রোবাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পুকুরে পড়ে যায়। এতে পথচারী এক নারীসহ তিনজন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে মাইক্রোবাসের ছয় যাত্রী। আহতদের চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

সন্দ্বীপে যুবলীগ নেতাকে গলাকেটে হত্যা 

555

চট্টগ্রাম, ১৭ মে : চট্টগ্রামের সন্দ্বীপ উপজেলায় সোহেল রানা ওরফে বোতা বাবলু (২৬) নামে এক যুবলীগ নেতাকে গলাকেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা।

বুধবার ভোর সাড়ে ৫টার দিকে উপজেলা পৌরসভার ৪নং ওয়ার্ডের টেকবাজ ব্রিজের নিচ থেকে তার লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

বাবলু সন্দ্বীপ পৌরসভা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক ও একই এলাকার জয়াল আবেদিন বোতার ছেলে।

সন্দ্বীপ থানার ওসির সামসুল ইসলাম জানান, ভোরে পৌরসভার টেকবাজ ব্রিজের নিচে একটি গলাকাটা লাশ পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেয়। পরে লাশ উদ্ধার করে হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, এলাকায় আধিপত্য নিয়ে এমপি মাহফুজুর রহমান মিতা ও মেয়র জাফর উল্লা টিটুর মধ্যে দ্বন্দ্ব চলে আসছে।

এর জের ধরে বাবলুকে হত্যা করা হয়ে থাকতে পারে।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

মিরসরাইয়ে নিজ বাড়িতে যুবলীগ নেতা খুন 

05

চট্টগ্রাম, ৮ মে : চট্টগ্রামের মিরসরাই উপজেলায় স্থানীয় যুবলীগ নেতা গোলাম মোস্তফাকে (৩৫) নিজ বাড়ির উঠানে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা।

রবিবার দিনগত রাত ১টার দিকে উপজেলার কড়েরহাট ইউনিয়নের দক্ষিণ অলিনগর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

গোলাম মোস্তফা ১নং কড়েরহাট ইউনিয়ন যুবলীগের সহসভাপতি ছিলেন।

নিহতের পরিবার ও পুলিশ জানায়, স্থানীয় কড়েরহাট বাজার থেকে রাতে নিজ মোটরসাইকেলে গোলাম মোস্তফা বাড়ি ফিরছিলেন। নিজ বাড়ির উঠানে এলে আগে থেকে ওঁৎ পেতে থাকা দুর্বৃত্তরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে তাকে কুপিয়ে রেখে পালিয়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই গোলাম মোস্তফার মৃত্যু হয়।

খবর পেয়ে সোমবার ভোরে গোলাম মোস্তফার বাড়িতে ছুটে যান কড়েরহাট ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এনায়েত হোসেন নয়ন ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি সুলতান জসিম উদ্দিন।

তারা এই হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে যেই জড়িত থাক না কেন, তাদের খুঁজে বের করা হবে বলে জানান।

জোড়াগঞ্জ থানার এসআই বিপুল দে জানান, খবর পেয়ে ভোরে ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে।

এ ঘটনায় মামলা ও ময়নাতদন্তের জন্য লাশ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান তিনি।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

চবির কয়েকটি হল থেকে অস্ত্র উদ্ধার 

21

চট্টগ্রাম, ৫ মে : বৃহস্পতিবার দিনভর ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের দফায় দফায় সংঘর্ষের পর চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের কয়েকটি হলে রাতে তল্লাশি চালিয়ে পুলিশ বিপুল পরিমাণ দেশীয় বিভিন্ন অস্ত্র উদ্ধার করেছে।

বৃহস্পতিবার দিনগত রাত ১০টা থেকে জেলা পুলিশের শতাধিক সদস্য কয়েকটি দলে বিভক্ত হয়ে এ অভিযান চালায়। পুলিশের এ অভিযানে সহযোগিতা করেছে চবি প্রশাসন।

রাত ১০টা থেকে অভিযান শুরু করে চলে রাত দেড়টা পর্যন্ত। এ সময় ছাত্রলীগ নিয়ন্ত্রিত চবির শাহজালাল, আলাওল, সোহরাওয়ার্দী, এ এফ রহমান, আব্দুর রব ও শাহ আমানত হলে তল্লাশি করে তিন বস্তা লোহার রড়, ধারালো দা, ছুরি, কিরিচ, চাপাতি উদ্ধার করেছে পুলিশ।

এ ব্যাপারে জানতে রাতে হাটহাজারী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) বেলাল উদ্দিন জাহাঙ্গীরকে ফোন দিলে তিনি ফোন রিসিভ করেননি।

তবে চবি পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই আখতারুজ্জামান হল তল্লাশি এবং অস্ত্র উদ্ধারে কথা স্বীকার করেছেন। কী পরিমাণ অস্ত্র উদ্ধার করে তিনি তা বলতে পারেননি।

অভিযানকালে জেলা পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। তবে এসব হল থেকে অস্ত্র উদ্ধারের সময় ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা হলে উপস্থিত থাকলেও পুলিশ তাদের আটক করেনি।

এর আগে বৃহস্পতিবার দুপুর চবি ছাত্রলীগের সভাপতি আলমগীর টিপু ও সাধারণ সম্পাদক ফজলে রাব্বি সুজনের অনুসারীদের মধ্যে কয়েক দফা সংঘর্ষে অন্তত সাতজন আহত হয়।

আহতরা হলেন- সাধারণ সম্পাদক গ্রুপের জামান নুর, সহসভাপতি আবুবক্কর (লোকপ্রশসন), এস এম মাসুম খান (ইতিহাস) ও সভাপতি গ্রুপের সাইফুল (একাউন্টিং), আশিক (ব্যাংকিং) ও নাফি (আইন)। বর্তমানে ওই দুই হলের সামনে অসংখ্য পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, বিশ্ববিদ্যালয়ের রেলস্টেশনে কথা কাটাকাটির জের ধরে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদকের অনুসারী মাসুম বিল্লাহকে মারধর করে সভাপতির অনুসারীরা। তাৎক্ষণিক এ খবর ছড়িয়ে পড়লে সাধারণ সম্পাদকের অনুসারীরা জড় হয়ে সভাপতির অনুসারীদের ধাওয়া দিলে তারা শাহজালাল হলে এসে অবস্থান নেয়।

পরে সাধারণ সম্পাদকের অনুসারীরা শাহ্ আমানত হলে ও সভাপতির অনুসারীরা শাহজালাল হলে অবস্থান নিয়ে দেশীয় অস্ত্রসহ ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও ইট-পাটকেল ছুড়তে থাকে। এতে দুগ্রুপের সাতজন নেতা-কর্মী আহত হয়।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

৩০৪ কোটি টাকা ব্যয়ের পরও ডুবছে চট্টগ্রাম 

30

চট্টগ্রাম, ২৩ এপ্রিল : বন্দরনগরীতে জলাবদ্ধতা নিরসনে গত ১৪ বছরে ব্যয় হয়েছে ৩০৪ কোটি টাকা। তার পরও প্রতি বর্ষায় পানিতে ডুবে যায় নগর। সিটি করপোরেশন নির্বাচনের আগে জলাবদ্ধতা দূর করার প্রতিশ্রুতি মেলে। তবে জলাবদ্ধতা থেকে মুক্তি মেলেনি নগরবাসীর। জলাবদ্ধতা স্থায়ীভাবে নিরসনে দীর্ঘমেয়াদি প্রকল্পও নেননি কোনো মেয়র। রুটিনওয়ার্ক করে সময় পার করেছেন তারা।

চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের বর্তমান মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীনের দুই বছর পার হয়েছে। জলাবদ্ধতা নিরসনে তিনিও কোনো নতুন প্রকল্প নেননি। জলাবদ্ধতা নিরসনে ২০১৪ সালে পাস হওয়া খাল খনন প্রকল্পও আলোর মুখ দেখেনি। এ বছর খনন কাজ শুষ্ক মৌসুমের পরিবর্তে বৃষ্টির মৌসুমে শুরু করায় জলাবদ্ধতা নগরবাসীর কাছে মরার উপর খাঁড়ার ঘা হয়ে দাঁড়িয়েছে। এখনও আবর্জনায় ভরাট হয়ে আছে নগরের পানি নিষ্কাশনের প্রধান মাধ্যম চাক্তাই ও মহেশখালসহ ১৭টি খাল।

মেয়র নাছির উদ্দীন সমকাকে বলেন, ‘একসঙ্গে তিনটি সংস্থার উন্নয়নযজ্ঞ চলছে নগরে। বৃষ্টি হলেই নির্মাণ সামগ্রীসহ খুঁড়ে রাখা মাটি নালা ও খালে পড়ে পানি চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। এ ছাড়া বহদ্দারহাটের একটি নালা বন্ধ করে দিয়ে ফ্লাইভারের পিলার নির্মাণ করেছে সিডিএ। সিটি করপোরেশনকে অবহিত করারও প্রয়োজনবোধ করেনি তারা। এসব কারণে জলাবদ্ধতা হচ্ছে। জলাবদ্ধতা সহনীয় পর্যায়ে রাখতে মরিয়া হয়ে চেষ্টা করছি। স্থায়ীভাবে নিরসনে ওয়াসা ও পানি উন্নয়ন বোর্ডের সমন্বয়ে প্রকল্প নেওয়া হয়েছে। তা পাসের অপেক্ষায় রয়েছে।’

জলাবদ্ধতা নিরসনে সাবেক মেয়র মহিউদ্দিন চৌধুরী তার সর্বশেষ মেয়াদে ২০০৩-০৪ থেকে ২০০৮-০৯ অর্থবছরে ব্যয় করেছেন ৬৬ কোটি ১১ লাখ টাকা। মনজুর আলম ২০১০ থেকে ২০১৫ সালের জুন পর্যন্ত ব্যয় করেছেন ২০৫ কোটি ৫২ লাখ টাকা। বর্তমান মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন ২০১৫-১৬ অর্থবছরে খরচ করেছেন ২১ কোটি টাকা। ২০১৬-১৭ অর্থবছরে ১১ কোটি টাকা ব্যয়ে ৮৯টি প্রকল্পের দরপত্র আহ্বান করা হয়েছে। প্রতিবছর এ খাতে কোটি কোটি টাকা খরচ করা হলেও কোনো সুফল পায়নি নগরবাসী।

এ প্রসঙ্গে নগর পরিকল্পনাবিদ ও স্থপতি জেরিনা হোসেন বলেন, ‘রুটিনওয়ার্ক দিয়ে জলাবদ্ধতা নিরসন সম্ভব হবে না। এর জন্য প্রয়োজন সংশ্লিষ্ট সব সংস্থার সমন্বয়ে দীর্ঘমেয়াদি বৃহৎ প্রকল্প। তা না হলে প্রতিবছর কোটি কোটি টাকা ব্যয় হবে কিন্তু কোনো সুফল মিলবে না।’

বর্ষায় খাল-নালা খননে বেড়েছে জলাবদ্ধতা:  সিটি করপোরেশন সূত্রে জানা গেছে, নগরের খাল ও নালা-নর্দমা থেকে মাটি উত্তোলনের জন্য ১১ কোটি ৫৫ লাখ টাকা ব্যয়ে ৮৯টি প্রকল্প হাতে নিয়েছে সিটি করপোরেশন। এসব প্রকল্পের মধ্যে ৩৯টি প্রকল্পের কার্যাদেশ দেওয়া হয়েছে। ৫০টি প্রকল্পের দরপত্র ই-জিপিতে (ইলেকট্রনিক গভর্নমেন্ট প্রকিউরমেন্ট) প্রকাশ করা হয়েছে। এগুলোর দরপত্র কার্যক্রম শেষ হতে আরও দুই সপ্তাহ পার হবে। গত বৃহস্পতিবার পর্যন্ত নগরের বিভিন্ন খাল থেকে প্রায় ১২শ’ ট্রাক আবর্জনা ও মাটি অপসারণ করা হয়েছে। এ ছাড়া বিভিন্ন ওয়ার্ডের নালা-নর্দমা থেকে দুই হাজার ২৭৪ শ্রমিক মাটি উত্তোলনের কাজ করেছেন। গতকাল শনিবারও খাল ও নালা থেকে মাটি উত্তোলন করা হয়েছে।

এ প্রসঙ্গে সিটি করপোরেশনের প্রধান প্রকৌশলী লেফটেন্যান্ট কর্নেল মহিউদ্দিন আহমদ বলেন, ‘৩১ ডিসেম্বর থেকে খাল ও নালার মাটি অপসারণ কাজ শুরু হয়েছে। জুনের মাঝামাঝি সময়ে শেষ করার পরিকল্পনা রয়েছে।’

সিটি করপোরেশন সূত্রে জানা গেছে, নগরের একাংশের পানি নিষ্কাশনের প্রধান মাধ্যম হচ্ছে ছয় কিলোমিটার দৈর্ঘ্যের চাক্তাই খাল। এ খালের সঙ্গে যুক্ত হয়েছে আরও নয়টি খাল। এগুলো হচ্ছে- ডোম খাল, চশমা খাল, হিজড়া খাল, চট্টেশ্বরী খাল, মির্জা খাল, সাব এরিয়া খাল, দেব পাহাড় খাল, আয়েশা খাতুন লেন খাল ও মনু মিয়া খাল। প্রবল বর্ষণে এসব খাল থেকে আসা পানি পুরোপুরি নিষ্কাশন করতে পারে না চাক্তাই খাল। তখনই সৃষ্টি হয় জলাবদ্ধতা।

সরেজমিন দেখা গেছে, চাক্তাই খালের বেশিরভাগই পলিথিন ও বর্জ্যে ভরে গেছে। সংযুক্ত নালাগুলোর ওপর নির্মাণ করা হয়েছে দোকানপাট। খালটির উভয় পাশে রয়েছে বহুতল ভবন, বস্তি ও সেমিপাকাসহ শত শত ঘরবাড়ি। এসব ভবনের গৃহস্থালি বর্জ্য ও বাসার পরিত্যক্ত সব জিনিস ফেলা হয় খালে। এটি এখন ময়লা-আবর্জনার ভাগাড়। নগরবাসীর অসচেতনতার কারণে এ অবস্থা সৃষ্টি হয়েছে। মার্চ থেকে খালটির আবর্জনা অপসারণ শুরু করলেও এখনও মাত্র ২৫-৩০ শতাংশ কাজ শেষ হয়েছে। এ ছাড়া আবর্জনায় চাক্তাই সংযোগ খালও ভরাট হয়ে আছে। খননের অভাবে ভরাট হয়ে আছে রাজাখালী খাল। এ খালের মধ্যম চাক্তাই থেকে রাজাখালী পর্যন্ত অংশে সিটি করপোরেশন কখনই খনন কাজ করেনি বলে অভিযোগ এলাকাবাসীর। কচুরিপানা ও আবর্জনায় ভরাট হয়ে আছে মহেশখাল। মির্জাখাল, বির্জাখাল, বামুনশাহী খালও আবর্জনায় ভরাট হয়ে আছে।

আলোর মুখ দেখেনি নতুন খাল:  জলাবদ্ধতা নিরসনে বহদ্দারহাট বারইপাড়া থেকে কর্ণফুলী নদী পর্যন্ত নতুন খাল খনন প্রকল্প অনুমোদন হয় ২০১৪ সালের জুন মাসে। ৩২৭ কোটি টাকার এ প্রকল্পের মেয়াদ শেষ হবে এ বছরের জুন মাসে। কিন্তু এখনও খালটির জমি অধিগ্রহণও শুরু করতে পারেনি সিটি করপোরেশন।

এ প্রসঙ্গে সিটি করপোরেশনের প্রধান প্রকৌশলী লেফটেন্যান্ট কর্নেল মহিউদ্দিন আহমদ বলেন, ‘জমি অধিগ্রহণ ব্যয় তিনগুণ বেড়ে যাওয়ায় প্রকল্পটি সংশোধন করে মন্ত্রণালয়ের পাঠানো হচ্ছে। কবরস্থান ও মসজিদ থাকায় অ্যালাইনমেন্টেও কিছুটা পরিবর্তন আনা হচ্ছে। সংশোধিত প্রকল্প পাস হলে কাজ শুরু হয়ে যাবে।-সমকাল

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

কালবৈশাখীর বৃষ্টিতে চট্টগ্রাম নগরী থইথই 

88

চট্টগ্রাম, ২১ এপ্রিল : চট্টগ্রামে শুক্রবার সকালে কালবৈশাখীর মুষলধারে বৃষ্টিতে নগরীর কয়েকটি এলাকায় দেখা দিয়েছে ভয়ংকর রকমের জলাবদ্ধতা। নিচু এলাকায় ঘরবাড়িতে ঢুকে পড়েছে পানি। ফলে দুর্ভোগ বেড়েছে নাগরিক জীবনের। পাশাপাশি নগরীর প্রধান প্রধান সড়ক ও অলিগলি ডুবে গেছে। ফলে আটকা পড়েছে অনেক যানবাহন।

শুক্রবার সকাল ছয়টা থেকে নয়টা পর্যন্ত আবহাওয়া অফিস যখন ৩২ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করেছে কর্ণফুলী নদীতে তখন জোয়ার। ফলে বৃষ্টির পানি নদীতে নামতে পারেনি। বেলা ১১টায়ও বৃষ্টি অব্যাহত ছিল।

আবহাওয়াবিদ শেখ ফরিদ আহম্মদ বলেন, ভারী বর্ষণের পূর্বাভাস ছিল। কালবৈশাখীর প্রভাবে চট্টগ্রামজুড়ে এ বৃষ্টিপাত হচ্ছে। আর এ বৃষ্টিপাতে নগরীর এক-তৃতীয়াংশ এলাকা ডুবে গেছে। এতে সমুদ্রবন্দরের জন্য কোনো সংকেত নেই।

এদিকে বৃষ্টি ও জলাবদ্ধতার কারণে সড়কে তেমন যানবাহন চলাচল করছে না। যাও চলছে তার ভাড়া স্বাভাবিকের চেয়ে দ্বিগুণ।

মূলত ভোর ছয়টা থেকে এই বজ্রসহ বৃষ্টিপাত শুরু হয়। কালবৈশাখীর বৃষ্টিতে নগরীর মুরাদপুর, ষোলশহর, প্রবর্তক মোড়, জিইসি, বহদ্দারহাট, চান্দগাঁও, হেমসেন লেন, হালিশহর, বাকলিয়া, আগ্রাবাদ, শুলকবহর, কাপাসগোলা, সিডিএ আবাসিক এলাকা পতেঙ্গাসহ নগরীর নিম্নাঞ্চল কোমর পানিতে তলিয়ে গেছে।

আগ্রাবাদ এলাকায় এক্সেস রোড, শান্তিবাগ, বেপারিপাড়া, মুহুরীপাড়া, রঙ্গিপাড়া, শ্যামলী আবাসিক, আগ্রাবাদ হাউজিং, ছোটপুল এলাকায় পানি উঠে গেছে। প্রবর্তক মোড়, জিইসি মোড়, মুরাদপুর ও ষোলশহর এলাকায় রাস্তায় পানি ওঠার কারণে শত শত যানবাহন আটকা পড়ে।

সাপ্তাহিক ছুটির দিন হওয়ায় সড়কে কর্মজীবি শ্রমিক তেমন দেখা না গেলেও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে যাওয়া আসায় দুর্ভোগ পোহাচ্ছেন ব্যবসায়ীরা।

চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন সরেজমিন পরিদর্শন করে জলাবদ্ধতার সঠিক কারণ ও করণীয় নির্ধারণে প্রকৌশলীদের  নির্দেশনা দিয়েছেন।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

চট্টগ্রামে পুলিশ-ছাত্রলীগ সংঘর্ষ, আহত ১৫ 

ca34x7md-copy

চট্টগ্রাম, ১৮ এপ্রিল : চট্টগ্রাম আউটার স্টেডিয়ামে সুইমিং পুল নির্মাণকে কেন্দ্র করে পুলিশের সঙ্গে ছাত্রলীগের তুমুল সংঘর্ষ হয়েছে। এতে উভয়পক্ষে আহত হয়েছে অন্তত ১৫ জন।

মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে দফায় দফায় এ ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষ হয়। এসময় ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা নির্মাণাধীন সুইমিং পুলের ঘেরাবেড়া উপড়ে ফেলে, নির্বিচারে রাস্তায় গাড়ি ভাঙচুর এবং দোকানপাটে হামলা চালায়। রাস্তায় টায়ার জ্বালিয়ে ব্যারিকেড দিয়ে যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেয়।

এ সময় পুরো এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। ব্যবসায়ীরা দোকানপাট বন্ধ করে দেয়।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

মহিউদ্দিন-নাছির এক মঞ্চে, হাতও মেলালেন 

kplc4g2y-copy

চট্টগ্রাম, ১৭ এপ্রিল : জাতির ঐক্যে ফাটল না ধরাতে সাংবাদিকদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন চট্টগ্রাম নগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এ বি এম মহিউদ্দিন চৌধুরী। ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস উপলক্ষে নগর আওয়ামী লীগ আয়োজিত এক আলোচনা সভায় আজ সোমবার বিকেলে তিনি এ আহ্বান জানান।

নগরের শহীদ মিনার চত্বরের আলোচনা সভায় সিটি মেয়র ও নগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দীনও বক্তব্য দেন।

বিকেলে আলোচনা সভার শেষ মুহূর্তে মেয়র নাছির উদ্দীনকে মাইক্রোফোনের সামনে ডেকে চট্টগ্রামের আঞ্চলিক ভাষায় মহিউদ্দিন চৌধুরী বলেন, ‘নাছির ভাই, ইক্কা আইয়ুন।’ (নাছির ভাই, এদিকে আসুন)। জবাবে মেয়র বলেন, ‘উনার (মহিউদ্দিন চৌধুরী) সঙ্গে কাজ করব উনার নেতৃত্বে।’ এ সময় উপস্থিত নেতা-কর্মীরা ‘জয় বাংলা’ এবং ‘জয় বঙ্গবন্ধু’ স্লোগান দিয়ে উল্লাসে ফেটে পড়েন।

আলোচনা সভাকে ঘিরে নগরে টান টান উত্তেজনা এবং সাধারণ মানুষের মধ্যে কৌতূহল ছিল। কারণ, ১০ এপ্রিল লালদীঘি মাঠে পূর্বের হারে নগরের গৃহকর বহাল এবং মৎস্যজীবীদের অধিকার প্রতিষ্ঠার দাবিতে সমাবেশে সিটি মেয়র নাছির উদ্দীনকে ‘খুনি’ অভিহিত করে বক্তব্য দিয়েছিলেন মহিউদ্দিন চৌধুরী। তাঁর এই বক্তব্য ‘পাগলের প্রলাপ’ বলে পাল্টা মন্তব্য করেছিলেন নাছির উদ্দীন। নগর আওয়ামী লীগের এই দুই শীর্ষ নেতার পাল্টাপাল্টি বাগ্‌বিতণ্ডার কারণে নেতা-কর্মীরাও ছিলেন অস্বস্তিতে।

আলোচনা সভায় মেয়র নাছিরের অনুসারী হিসেবে পরিচিত নগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নোমান আল মাহমুদ, সদস্য বেলাল আহমেদ, জামালখান ওয়ার্ডের সাধারণ সম্পাদক মোরশেদ আলমসহ নগর ও ওয়ার্ডের ১৫-১৬ জন নেতা শহীদ মিনারে যান। তবে কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি।

মেয়রের অনুসারী বেলাল আহমেদ বলেন, ‘দুজনের মধ্যে বিভাজনের কারণে নেতা-কর্মীরা শঙ্কিত ছিলেন। আমাদের এই দুই নেতার ঐক্যে আওয়ামী লীগ ও সভানেত্রী লাভবান হয়েছেন।’

আলোচনা সভায় মহিউদ্দিন চৌধুরী বলেন, ‘সাংবাদিক ভাইয়েরা, আবেদন করব, আপনাদের লেখনীতে জাতির ঐক্য যেটা হচ্ছে, তাতে যেন ফাটল না হয়। গভীর আগ্রহ নিয়ে ফাটল ধরিয়ে পৃষ্ঠার পর পৃষ্ঠা লিখে আমাদের খাটো করার চেষ্টা করবেন না আল্লাহর ওয়াস্তে।’ তিনি আরও বলেন, ‘ভুল আমরা করতে পারি। সংশোধন করে দেবেন।

এরপর আঞ্চলিক ভাষায় মহিউদ্দিন চৌধুরী বলেন, ‘খালি ইক্কার ল ইক্কা গরিয়েরে লেখের। (শুধু এদিক-ওদিক করে লিখে দিচ্ছে।) এটা ঠিক নয়। আমাদের সন্তান অনেকে সাংবাদিক। ভেদাভেদ সৃষ্টি করে কোনো লাভ হবে বলে মনে হয় না।’ এরপর মহিউদ্দিন চৌধুরী মেয়রকে ডেকে বলেন, ‘ভাই, নাছির ভাই ইক্কা আইয়ুন।’ মেয়র নাছির উঠে এসে মহিউদ্দিন চৌধুরীর সঙ্গে হাত মেলান।

এর আগে মেয়র নাছির উদ্দীন বলেন, পাকিস্তানি শোষণ ও শাসনের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়ে বঙ্গবন্ধু দেশ স্বাধীন করেছিলেন। তাঁকে রাষ্ট্রপতি করে প্রবাসী মুজিবনগর সরকার গঠন করা হয়েছিল। স্বাধীনের পর তিনি দেশে ফিরে বলেছিলেন, ‘রাজনৈতিক স্বাধীনতা আমি চাইনি, চেয়েছি অর্থনৈতিক স্বাধীনতা। কিন্তু পঁচাত্তরের ১৫ আগস্ট ঘাতকেরা বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করেন। তাঁর মেয়ে জননেত্রী শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বিনির্মাণে নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে চলছে।’

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

জ্ঞান রপ্তানি করতে চাই : শিক্ষামন্ত্রী 

চট্টগ্রাম, ১৬ এপ্রিল : শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছেন, ‘আমরাও জ্ঞান রপ্তানি করতে চাই, প্রযুক্তি রপ্তানি করতে চাই। আর এটা করতে গেলে আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ে সেই জ্ঞান সৃষ্টি করতে হবে।’

গতকাল শনিবার রাতে চট্টগ্রাম ক্লাবে চিটাগং বিজিএমইএ ইনস্টিটিউট অব ফ্যাশন অ্যান্ড টেকনোলজির (সিবিআইএফটি) প্রথম ব্যাচের সমাবর্তন অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী এসব কথা বলেন।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, গার্মেন্ট শিল্পে দেশের দক্ষ শিক্ষার্থীদের যুক্ত করতে পারলে বৈদেশিক মুদ্রা সাশ্রয়ের পাশাপাশি এ শিল্প আরো সমৃদ্ধ হবে।

নুরুল ইসলাম নাহিদ আরো বলেন, বিশ্বমানের আধুনিক প্রযুক্তিনির্ভর শিক্ষায় শিক্ষিত দক্ষ জাতি গড়ে তুলতে হবে। পোশাক রপ্তানির পাশাপাশি দেশের সমৃদ্ধি অর্জনে জ্ঞান ও প্রযুক্তি রপ্তানি করতে দক্ষ নাগরিক গড়ে তুলতে সরকারের পক্ষ থেকে সব ধরনের সহায়তা দেওয়া হবে।

সিবিআইএফটির পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি মোহাম্মদ নাসির উদ্দীনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ইফতেখার উদ্দীন আহমেদ, বিজিএমইএর সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান। পরে প্রতিষ্ঠানটির প্রথম ব্যাচের ২৬ শিক্ষার্থীর মধ্যে সনদ বিতরণ করেন শিক্ষামন্ত্রী।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

চট্টগ্রামে ২০ লাখ ইয়াবাসহ আটক ৯ 

চট্টগ্রাম, ১৬ এপ্রিল : বন্দর নগরী চট্টগ্রামে ২০ লাখ ইয়াবাসহ ৯ জনকে আটক করেছে র‌্যাব।

আজ রবিবার ভোরে গভীর সমুদ্রে একটি ট্রলারে থেকে ইয়াবাসহ তাদের আটক করা হয়।

র‌্যাব ৭ এর সিনিয়র এএসপি মিনতানুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, এ বিষয়ে বিস্তারিত সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে জানানো হবে।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

চট্টগ্রামে চারুকলার দেয়ালচিত্রে ‘মবিল হামলা’ 

চট্টগ্রাম, ১৩ এপ্রিল : বৈশাখবিরোধী দুর্বৃত্তরা রাতের অন্ধকারে চট্টগ্রাম নগরীর বাদশা মিঞা সড়কের দেয়ালে আঁকা বাংলার লোক-ঐতিহ্যের চিত্রগুলো পোড়া মবিল দ্বারা নষ্ট করে দিয়েছে। পয়লা বৈশাখ সামনে রেখে কয়েক দিন ধরে উৎসাহ-উদ্দীপনা নিয়ে এসব দেয়ালচিত্র এঁকেছিলেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় চারুকলা ইনস্টিটিউটের শিক্ষার্থীরা।

পুলিশ জানিয়েছে, মঙ্গলবার রাত ১টার দিকে দুটি মোটরসাইকেলে করে পাঁচ-ছয় যুবক ঘটনাস্থলে এসে মবিলের মতো কিছু একটা ছিটিয়ে পালিয়ে যায়। এর ফলে দেয়ালচিত্রগুলো নষ্ট হয়ে যায়। রাত ১২টায় এই দেয়ালচিত্রগুলো অঙ্কন করেছিলেন শিক্ষার্থীরা। এর কিছুক্ষণ পরই এই হামলার ঘটনা ঘটে। এখন ঘটনাস্থলে পুলিশ অবস্থান করছে। সিসিটিভি ফুটেজ দেখে এ ঘটনায় জড়িতদের খুঁজে বের করার চেষ্টা চালানো হচ্ছে।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

ডা. শেখ শফিউল আজম দুস্থ মানবতার সেবায় নিয়োজিত 

2

পৃথ্বি রাজ বড়ুয়া, চট্টগ্রাম, ১২ এপ্রিল : ডা. শেখ শফিউল আজম দুস্থ মানবতার কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছেন নিরালসভাবে। ছাত্রজীবন থেকে রাজনীতির হাতে কড়ির মধ্যদিয়ে সমাজের অসহায় দুঃস্থ মানুষের পাশে দাঁড়ানো প্রত্যয় নিয়ে কাজ করে যাচ্ছেন তিনি। দুস্থ মানবতার কল্যাণে এই মহতী কাজ আজীবন অব্যাহত থাকবেন বলে মনে করি। যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রামের পক্ষ থেকে ডা. শেখ শফিউল আজমকে দেওয়া সংর্বধনা অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথির বক্ত্যবে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) হাবিবুর রহমান এ কথা বলেন।

বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির ব্যবস্থাপনা পর্ষদ সদস্য ও চট্টগ্রাম জেলা ইউনিটের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান ডা. শেখ শফিউল আজম বাংলাদেশ মেডিকেল এসোশিয়েনের (বিএমএ) কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি এবং বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির ব্যবস্থাপনা পর্ষদে সদস্য পূণঃনির্বাচিত হওয়ায়  যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রামের উদ্যেগে এক সংর্বধনার আয়োজন করা হয়।

যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রামের যুব প্রধান ফখরুল ইসলাম চৌধুরী পরাগ এর সভাপতিত্বে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউজের সম্মেলন রুমে অনুষ্ঠিত হয় এই সংর্বধনা অনুষ্ঠান। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) হাবিবুর রহমান। সংর্বধিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির ব্যবস্থাপনা পর্ষদ সদস্য ও চট্টগ্রাম জেলা ইউনিটের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান ডা. শেখ শফিউল আজম এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রাম সিটি ইউনিটের সেক্রেটারী সেক্রেটারি আব্দুল জব্বার।

বক্তব্য রাখেন সিটি ইউনিটের পক্ষে কার্যকরি পর্ষদ সদস্য এইচ এম সালাউদ্দিন, আনোয়ার আজম ও সৈয়দ আদনান হোসাইন, যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রামের প্রাক্তন যুব প্রধান শহিদুল ইসলাম ও সৌমিত্র চৌধুরী, যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রামের যুব উপ-প্রধান জিয়াউল কবির সোহেল ও তন্বী বড়–য়া। এসময় উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম জেলা ইউনিটের ইউনিট লেভেল কর্মকর্তা আব্দুর রশিদ, চট্টগ্রাম সিটি ইউনিটের ইউনিট লেবেল কর্মকর্তা নুরুল করিম এবং সিনিয়র যুব সদস্য সৈয়দ শাহরিয়াত হোসেন। এ সময় যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রামের পক্ষে উপস্থিত ছিলেন যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রামের সাংগঠনিক বিভাগীয় প্রধান ইসমাইল হক চৌধুরী ফয়সাল, প্রশিক্ষন বিভাগীয় প্রধান হারুনুর রশিদ, প্রচার ও প্রকাশনা বিভাগীয় প্রধান পৃথ্বি রাজ বড়–য়া সহ-কার্যকরী পর্ষদের অন্যান্য সদস্যবৃন্দ, স্কুল ও কলেজ ইউনিট সমূহের দায়িত্বপ্রাপ্ত শিক্ষক, যুব প্রধানবৃন্দও  মুক্তদল সদস্যবৃন্দ।  ডা. শেখ শফিউল আজমের সফলতার জন্যতাকে যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রামের পক্ষ থেকে ফুল ও ক্রেষ্ট প্রদানের মাধ্যমের সম্মাননা জানানো হয়।

প্রধান অতিথি আরো বলেন, রেড ক্রিসেন্ট দেশ ও মানুষের কল্যাণে কাজ করে থাকে যা দেশ ও বিশ্বব্যাপী সমাদ্রিত। আন্তর্জাতিক এই সেবা সংস্থার সাথে তরণদের সম্পৃক্ততা তাদের নিজ চারিত্রিক উন্নয়নে সহায়ক ভূমিকা পালন করে। ডা. শফিউল আজমের নের্তৃত্বে চট্টগ্রামের রেড ক্রিসেন্ট অনেক শক্তিশালী। তার নের্তৃত্বে দক্ষ ও প্রশিক্ষিত সেচ্ছাসেবক দল গঠনের  দেশ ও জাতি কল্যাণে সর্বদা কাজ করবে বলে আমি বিশ্বাস করি। তিনি যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রাম এর দুর্যোগ ও দুর্যোগ পরবর্তী কার্যক্রম প্রশংসা করেন।

সংর্বধনার জবাবে ডা. শেখ শফিউল আজম বলেন, যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রামের পক্ষ থেকে আমাকে যে সম্মানিত করা হয়েছে এতে আমি অভিভূত। যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রাম সব সময় ব্যাতিক্রম ধর্মী কাজ করে থাকে। তাদের এই কার্যক্রম সমগ্র বাংলাদেশে খুবই প্রসংশিত। তাদের এই কর্মকান্ডে মানবতার সেবা করতে আমাকে আরো উৎসাহিত করবে। প্রেরণা যোগাবে মানব কল্যাণে কাজ করতে। ডা. শফিউল আজম বলেন, ৫ম বিভাগীয় যুব রেড ক্রিসেন্ট ক্যা¤প ২০১৭, চট্টগ্রাম সফল ভাবে আয়োজনের মাধ্যমে যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রাম এক অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে।

তাকে সম্মানিত করায়  যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রাম এর যুব সদস্যদের ধন্যবাদ জানান এবং যুব রেড ক্রিসেন্ট চট্টগ্রামের যেকোন কর্মকান্ডে সহযোগিতার আশ্বাস প্রদান করেন।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

সন্দ্বীপে নৌকাডুবি, ৪ লাশ উদ্ধার 

35

চট্টগ্রাম, ৩ এপ্রিল : চট্টগ্রামের সন্দ্বীপে সি-ট্রাক থেকে যাত্রী নামাতে গিয়ে নৌকাডুবির ঘটনায় এক নারীসহ ৪ জনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

গতকাল রবিবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে উপজেলার গোপ্তাছড়া ঘাটে এ নৌকাডুবির ঘটনা ঘটে।

পরে উদ্ধার তৎপরতা চালিয়ে রাত ২টার দিকে তিনজন এবং সোমবার সকালে আরও একজনের লাশ উদ্ধার করা হয়।

এ ঘটনায় এখনও শিশুসহ অন্তত ১০ জন নিখোঁজ রয়েছে। তাদের সন্ধানে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি, কোস্টগার্ড, জেলা প্রশাসন ও স্থানীয়রা উদ্ধারকাজ চালাচ্ছেন।

কোস্টগার্ড চট্টগ্রাম পূর্ব জোন কমান্ডার লে. কর্নেল ওমর ফারুক জানান, চট্টগ্রামের কুমিরাঘাট থেকে ছেড়ে আসা একটি সি-ট্রাক গোপ্তাছড়া ঘাটে নোঙর করে।

এ সময় যাত্রী নিতে ছোট আকারের একটি নৌকা সি-ট্রাকের কাছে যায়। সেখান থেকে যাত্রীরা ওঠার সময় প্রচণ্ড ঢেউ ও সি-ট্রাকের ধাক্কায় ৪০/৪৫ জন যাত্রী নিয়ে নৌকাটি ডুবে যায়।

তাৎক্ষণিকভাবে সাঁতরে ও স্থানীয়দের সহায়তায় ২৫ জনকে উদ্ধার করা গেলেও অন্যরা স্রোতে ভেসে যায়। রাতেই তিনজনের এবং সোমবার সকালে আরও এক লাশ উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানান লে. কর্নেল ওমর ফারুক।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

রোববার চট্টগ্রামে অর্ধদিবস হরতাল 

245

চট্টগ্রাম, ১ এপ্রিল : ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় সহ-সম্পাদক নুরুল আলম নুরু হত্যার প্রতিবাদে রবিবার চট্টগ্রামে অর্ধদিবস হরতাল ডেকেছে মহানগর ছাত্রদল।

শুক্রবার দুপুরে নগরের জমিয়তুল ফালাহ জাতীয় মসজিদ মাঠে নুরুর জানাজা শেষে নগর বিএনপির সভাপতি শাহাদত হোসেন এ হরতালের ঘোষণা দেন।

রবিবার সকাল ৬টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত এ হরতাল পালন করা হবে। একই দিন দেশব্যাপী বিক্ষোভ কর্মসূচিরও ঘোষণা দিয়েছে কেন্দ্রীয় ছাত্রদল।

বুধবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে চট্টগ্রাম নগরের চন্দনপুরার বাসা থেকে ছাত্রদল নেতা নুরুল আলম নুরুকে হ্যান্ডকাফ পরিয়ে নিয়ে যায় একদল লোক। বৃহস্পতিবার সকালে রাউজান উপজেলার বাগোয়ান ইউনিয়নের খেলারঘাট বাজারের পাশে কর্ণফুলী নদীর তীরে তার লাশ পাওয়া যায়।

নগর বিএনপির সভাপতি শাহাদত হোসেন বলেন, ছাত্রদল এই হরতাল ডাকলেও বিএনপি ও সহযোগী সংগঠনগুলো এতে সমর্থন দেবে। চট্টগ্রাম মহানগর ও জেলা এবং রাঙ্গামাটি, বান্দরবান, খাগড়াছড়ি ও কক্সবাজার জেলায় এই হরতাল পালন করা হবে।

এই সময় জানানো হয়, হরতালের পাশাপাশি নুরুল আলম নুরু হত্যার প্রতিবাদে দেশের সব জেলা-মহানগর শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বিক্ষোভ ও মিছিল সমাবেশ কর্মসূচি পালন করবে ছাত্রদল।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর