২২ জুলাই ২০১৭
দুপুর ২:৫৫, শনিবার

সন্ধ্যায় লন্ডন যাচ্ছেন খালেদা জিয়া

সন্ধ্যায় লন্ডন যাচ্ছেন খালেদা জিয়া 

881

ঢাকা, ১৫ জুলাই : চিকিৎসার জন্য লন্ডন যাচ্ছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। শনিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় এমিরেটস এয়ারলাইন্সের ৫৭৮ ফ্লাইটে লন্ডনের উদ্দেশে তার ঢাকা ত্যাগ করার কথা রয়েছে।

বিএনপি চেয়ারপারসনের কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, খালেদা জিয়ার সঙ্গে তার একান্ত সচিব এ বি এম আব্দুস সাত্তার ও গৃহপরিচারিকা ফাতেমা বেগমও যাচ্ছেন। এ ছাড়া দলের বেশ কয়েকজন সিনিয়র নেতাও লন্ডনে যাচ্ছেন।

দলীয় সূত্রে জানা গেছে, লন্ডনে চোখ ও পায়ের চিকিৎসা করাবেন খালেদা জিয়া। চিকিৎসার পাশাপাশি লন্ডনে অবস্থানরত বড় ছেলে ও দলের সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের কাছে বেশ কিছু দিন তিনি অবস্থান করবেন।

সর্বশেষ ২০১৫ সালে ১৬ সেপ্টেম্বর খালেদা জিয়া চিকিৎসার জন্য লন্ডনে যান। ওই সময়ে লন্ডনে দীর্ঘদিন ধরে অবস্থানরত বড় ছেলে তারেক রহমানসহ তার পরিবারের সাথে ঈদ উদযাপন করে দেশে ফিরেন তিনি।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

রংপুরে পানিবন্দি ৪৫ হাজার পরিবার 

আব্দুর রহমান রাসেল, রংপুর, ১৩ জুলাই : তিস্তার নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়ে রংপুরের  তিন উপজেলায় ১২টি ইউনিয়নের ৪৫হাজার পরিবার  পানিবন্ধি হয়ে পড়েছে । তিস্তার ডান তীরে ফাটল দেখা দিয়েছে । আতঙ্কিত হয়ে পড়েছে তিস্তা পাড়ের মানুষজন।

সরেজমিনে বন্যা কবলিত এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, গঙ্গাচড়ায় ৬টি ইউনিয়নে প্রায় ৩০ হাজার পরিবার , পীরগাছায়  ৩টি ইউনিয়ন প্রায় ১০ হাজার পরিবার , কাউনিয়ার তিনটি ইউনিয়নের প্রায় ৫ হাজার পরিবার  পানিবন্ধি হয়ে পড়েছে ।

গঙ্গাচড়ায় তিস্তার নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়ে উপজেলার নোহালী, আলমবিদিতর, কোলকোন্দ, লক্ষ্মীটারী, গজঘন্টা ও মর্ণেয়া ইউনিয়নের প্রায় ৩ হাজার পরিবার পানিবন্ধি হয়ে পড়েছে।পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকায় আতঙ্কিত হয়ে পড়েছে তিস্তা পাড়ের মানুষজন। পানিবৃদ্ধির সাথে সাথে আলমবিদিতর ইউনিয়নের পাইকান দোলাপাড়া, হাজীপাড়া ও  কোলকোন্দ ইউনিয়নের সাউদপাড়া এলাকায় নদী ভাঙন দেখা দিয়েছে। আলমবিদিতর ইউপি চেয়ারম্যান আফতাবুজ্জামান জানান, গত এক সপ্তাহের ব্যবধানে পাইকান দোলাপাড়ায় ১০টি পরিবার নদী ভাঙনের শিকার হয়ে তাদের ঘর বাড়ি অন্যত্র সরিয়ে নিয়েছে। নোহালী ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ টিটুল বলেন, তিস্তার পানি বৃদ্ধির ফলে নোহালী ইউনিয়নের প্রায় ৫শ পরিবার পানিবন্দী হয়ে পড়েছে।

পীরগাছায় উপজেলার ৩টি ইউনিয়নের ২০ টি গ্রামের প্রায় ১০ হাজার পরিবার পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। উপজেলার ছাওলা ইউনিয়নের গাবুড়া, শিবদেবচর, আমিনপাড়া, চর ছাওলা কামারের হাট, রামসিং, জুয়ানের চরসহ প্রায় ১০টি গ্রাম বন্যার পানিতে তলিয়ে গেছে। গ্রামগুলোতে অবস্থিত প্রায় ৮টি প্রাথমিক বিদ্যালয় পানির নিচে তলিয়ে যাওয়ায় তা বন্ধ ঘোষনা করা হয়েছে। এছাড়াও তাম্বুলপুর ইউনিয়নের চর তাম্বুলপুর, নামাচর, চররহমতসহ ৬টি ও কান্দি ইউনিয়নের সতন্ত্ররা , দোয়ানি মনিরাম, তেয়ানি মনিরাম এবং দীঘটারি গ্রাম বন্যার পানিতে প্লাবিত হয়েছে। এদিকে তিস্তা প্রতিরক্ষা বাঁধের পীরগাছা পয়েন্টে পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় বাঁধের ৩ কিলোমিটার অংশ হুমকির মূখে পড়েছে বর্তমানে বন্যা কবলিত এলাকাগুলোতে বিশুদ্ধ পানির তীব্র সংকট দেখা দিয়েছে। অনেকে খাদ্য সামগ্রী ও বিশুদ্ধ পানি নিজ উদ্যোগে সংগ্রহ করলেও তা প্রয়োজনের তুলনায় অপ্রতুল বলে বন্যা দূর্গত এলাকার লোকজন জানায়।উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা আব্দুল আজিজ জানান, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাসহ বন্যা দূর্গত এলাকা পরিদর্শন করা হয়েছে। বন্যা দূর্গত এলাকার মানুষের জন্য শুকনা খাবার ও ত্রানের জন্য চাহিদা পাঠানো হয়েছে। বরাদ্ধ পেলে বন্যা দূর্গতদের মাঝে বিতরণ করা হবে।

এদিকে, কাউনিয়ার তিনটি ইউনিয়নের প্রায় ৫ হাজার পরিবার পানি বন্ধি হয়ে পড়েছে। কাউনিয়ার উপজেলার চর গদাই, গুপিডাঙ্গা, প্রাননাথচর, চর ঢুসমারা, হয়বত খাঁ, চর গনাই, টাপুর চর, আজম খাঁ, হরিচরন শর্মা গ্রামে তিস্তা নদীর পানি ঢুকে বন্যা কবলিত হয়ে হাজার হাজার মানুষ পানি বন্দি হয়ে পড়েছে। সেই সাথে বিভিন্ন ইউনিয়নের রাস্তা ঘাট ভেঙ্গেগেছে, তলিয়ে গেছে বীজতলা। দেখা দিয়েছে বিশুদ্ধ পানির অভাব। বন্যা কবলিত এলাকা উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মাহাফুজার রহমান মিঠু পরিদর্শন করে ব্যাক্তিগত তহবিল থেকে বন্যা কবলিত মানুষেকে আর্থিক সহায়তা প্রদান করেন।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

১০% চাঁদা কর্তনের প্রতিবাদে বেসরকারী শিক্ষকদের মানব বন্ধন 

রাসেল, রংপুর, ১২ জুলাই : বেসরকারী শিক্ষকদের অবসর বোর্ড ও কল্যাণ ট্রাষ্ট্র সুবিধার নামে বেতনের ১০% কর্তনের সরকারী সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে বুধবার সকাল ১১টায় কাচারী বাজার জিরো পয়েন্টে বাংলাদেশ শিক্ষক সমিতি (বিটিএ) ও বাংলাদেশ কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি (বাকশিস) মানব বন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

বাংলাদেশ শিক্ষক সমিতি রংপুর জেলা সভাপতি শিক্ষক মাসুম হাসানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত শিক্ষক সমাবেশে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ শিক্ষক সমিতির জেলা সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ আতিয়ার রহমান প্রামানিক, সহ-সভাপতি অধ্যক্ষ মোহাম্মদ আলী, আবুল মুযম আজাদ, শিক্ষক নেতা মোফাজ্জল হোসেন, আয়েশা সিদ্দিকা, আশরাফুল আলম সরকার এবং বাংলাদেশ কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির রংপুর জেলা সভাপতি অধ্যক্ষ আব্দুল ওয়াহেদ মিয়া, সাধারণ সম্পাদক রওশানুল কাওছার সংগ্রাম, যুগ্ম সম্পাদক আব্দুল বাতেন, সহ-সভাপতি মাজেদ আলী বাবুল, মহানগর সভাপতি নবীন হোসেন লাবলু, সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ আব্দুর রউফ সরকার প্রমুখ।

সমাবেশ পরিচালনা করেন কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সাংগঠনিক সম্পাদক শাহ মোঃ রেজাউল ইসলাম। নেতৃবৃন্দ সমাবেশে থেকে বলেন, কল্যাণ ট্রাষ্ট ও অবসর বোর্ডের সুযোগ সুবিধা না বাড়িয়ে ও শিক্ষকদের সাথে আলোচনা না করে অন্যায় ও অযুক্তিক ভাবে ৬% এর পরিবর্তে আকস্মিক ভাবে বেতনের ১০% হারে চাঁদা কর্তনের সরকারি সিদ্ধান্ত এবং প্রজ্ঞাপন ঘোষার তীব্র প্রতিবাদ জানান হয়।

বেসরকারী শিক্ষকরা যখন স্কুল কলেজ জাতীয় করণসহ ৫% বার্ষিক প্রবৃদ্ধির বৈশাখী ভাতা, উৎসব ভাতা প্রদান ও অন্যান্য দাবিতে আন্দোলন করছেন তখন আকস্মিক ভাবে বেতনের ১০% চাঁদা কর্তনের সিদ্ধান্ত সপুর্ন অন্যায় ও অযুক্তিক বলে বক্তারা উল্লেখ করেন সভায় অবিলম্বে এই সিদ্ধান্ত স্থগিত করে শিক্ষকদের ন্যায্য দাবিদাওয়া মেনে নেয়ার আহবান জানান হয়। সমাবেশ ও মানব বন্ধন শেষে একটি বিক্ষোভ মিছিল শহরে প্রধান প্রধান প্রধান সড়ক প্রদিক্ষণ করেন।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

রংপুরে ইয়াবাসহ মাদক ব্যবসায়ী আটক 

আব্দুর রহমান রাসেল, রংপুর, ১০ জুলাই : রংপুরে মাদক বিরোধী অভিযানে ৫২ পিচ ইয়াবাসহ জয়নাল আবেদীন নামে এক মাদক ব্যবসায়ী গ্রেপ্তার হয়েছে। সোমবার বিকেলে নগরীর আশরতপুর কোর্টপাড়ার নিজ বাড়ি থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এবিএম জাহিদুল ইসলাম গ্রেপ্তারের বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি জানান, সোমবার বিকেলে আশরতপুর কোর্টপাড়ার মাদক ব্যবসায়ী লাল মিয়ার পুত্র জয়নাল আবেদীনের বড়িতে অভিযান চালানো হয়। বিক্রয় প্রস্তুতিকালে ৫২টি ইয়ারা ট্যাবলেটসহ তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

ওসি আরো বলেন, জয়নাল আবেদীন দীর্ঘদিন ধরে মাদক ব্যবসা করে আসছেন। তার বিরুদ্ধে মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনে মামলা হয়েছে।

এদিকে পুলিশের মাদক বিরোধী এই অভিযানে কোতয়ালী থানার ওসি এবিএম জাহিদুল ইসলামসহ মাহিগঞ্জ পুলিশ ফাঁড়ি কর্মকর্তা এসআই শাহ আলম, এটিএসআই নিউটন, এটিএসআই শিশির, এটিএসআই শাফায়েত সঙ্গিয় ফোর্স ছিলেন।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

রংপুরে চোলাই মদসহ গ্রেফতার ১ 

568

রংপুর, ১০ জুলাই : রংপুরের বদরগঞ্জে ৫০ লিটার চোলাই মদসহ মোস্তফা (৪৬) নামে এক মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। রবিবার গভীর রাতে উপজেলার দামোদরপুর ইউনিয়নের চানকুঠি এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতার মোস্তফা চানকুঠি এলাকার হেফাজ উদ্দিনের ছেলে।

মোস্তফার বিরুদ্ধে মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা হয়েছে বলে জানান বদরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আখতারুজ্জামান প্রধান।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

জীবনের ঝুকি নিয়ে বাঁশের সাঁকো পানাপার 

আব্দুর রহমান রাসেল, রংপুর, ৭ জুলাই : রংপুরের পীরগাছা উপজেলার ছাওলা ও তাম্বুলপুর জনপ্রতিনিধিদের আশায় থাকতে থাকতে যোগাযোগের বেহাল আবস্থা সৃষ্টি হওয়ায় জীবনের ঝুকি নিয়ে  বাঁশের সাঁকো দিয়ে জনতার প্রচেষ্টায় স্বেচ্ছা শ্রমে ৪ গ্রামের মানুষ মিলিত হয়ে বুরাল নদীর উপর নির্মান করলো একটি বাঁশের সাঁকো। বুরাল নদীর উপর বাঁশের সাঁকো  দিয়ে তাম্বুলপুরের রামগোপাল শেষ মাথার পরেই   টেপচারবন্দর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়,আদম বাজার,ছাওলা,পাওটানাহাট যাওয়ার একমাত্র এ রাস্তাটি প্রায় ২যুগেরও বেশি মানুষ পথ চলাচল করেন।

এ স্থানে খেয়া দিয়ে জীবনের ঝুকি নিয়ে স্কুল কলেজ মাদ্রাসার ছাত্র-ছাত্রী শিশু বৃদ্ধ মহিলারা প্রতিনিয়ত পাড়াপাড় হয়। স্থানীয় সাবেক চেয়ারম্যান ও উপজেলা চেয়ারম্যানসহ জাতীয় সংসদ সদস্য পর্যন্তওই স্থানে একটি পাকা সেতু নির্মানের প্রতিশ্রুতি দিলেও  একযুগেও তা কার্যকরী না হওয়ায় স্থানীয় জনতা একত্রিত হয়ে বাড়ী বাড়ী গিয়ে বাঁশ তুলে বাঁশের সাঁকোটি নির্মান করে। ওই বাঁশের সাঁকো দিয়ে  তাম্বুলপুরের মানুষ  রামগোপালের শেষ মাথা  পাড় হলেই প্রথমে টেপচারবন্দর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়,আদম বাজার,ছাওলা,পাওটানাহাট, এলাকার প্রায় ২০ হাজার মানুষের যাতায়তের ভোগান্তি বেড়েই চলচ্ছে। সাবেক মেম্বার ও বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ ছাওলা ইউনিয়ন শাখার সাধারন সম্পাদক মো: আব্দুল হাকিম মিয়া বলেন টেপচারবন্দরে এক সময় বন্দর নামে হাট বাজার  ছিলো । আর সেই হাটে বিভিন্ন জেলা থেকে ক্রেতারা আসতো  পাট,গম, সরিষা,মরিছ, ক্রয় করার জন্য। ক্রেতারা বুরাইল নদীর উপর খেয়া দিয়ে জীবনের ঝুকি নিয়ে পাট,গম, সরিষা,মরিছ ক্রয় করে জামালপুর,ময়মনশিং,ঢাকা,নারায়নগঞ্জ উদ্দেশ্য নিয়ে যেতো। র্বতমানেও  জীবনের ঝুকি নিয়ে বুরাল নদীর উপর বাঁশের সাঁকো দিয়ে স্কুল ছাত্র-ছাত্রীরা চলাচল করে।
টেপচারবন্দর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হয়রত আলী জানান,২যুগেরও বেশি  জীবনের ঝুকি নিয়ে বাঁশের সাঁকো দিয়ে পথ চলাচল করে স্কুল কলেজ মাদ্রাসার ছাত্র-ছাত্রী শিশু বৃদ্ধ মহিলারা ।

এলাকার মানুষ, উপজেলা চেয়ারম্যানের মুখাপেক্ষি না হয়ে নিজেদের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় ও আর্থিক সহযোগিতায় আমরা কয়েক দিনে কিছু  মানুষ মিলে  বাঁশের সাঁকোটি নির্মান করতে পেরেছি। এর ফলে এলাকার মানুষের কিছুটা হলেও দূর্ভোগ লাঘব হয়েছে। র্বতমান ছাওলা ইউপি চেয়ারম্যান শাহ্ মোঃ হাকিম জানান, এখানে একটি পাকা সেতু নির্মানের জন্য সব ধরনের প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। স্থানীয় সংসদ সদস্য বেশ আন্তরিক। তিনি এ স্থানে ব্রীজ নির্মানের জন্য স্থানীয় সরকার মন্ত্রনালয়ে একটি ডিও লেটার দিয়েছেন। আশা করছি দ্রুত ব্রীজ নির্মান করা হবে। এলাকাবাসী উক্তস্থানে একটি পাকা সেতু নির্মানের দাবী জানিয়েছেন।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

দীর্ঘ মানব প্রাচীর, উত্তাল রংপুর নগরী 

আব্দুর রহমান রাসেল, রংপুর, ৫ জুলাই : রংপুর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র বীরমুক্তিযোদ্ধা সরফুদ্দীন আহম্মেদ ঝন্টুর ওপর হামলার প্রতিবাদে গতকাল বুধবার নগরীতে দাবী আদায়ে তিন কিলোমিটার দীর্ঘ মানব প্রাচীরে নেমেছিল মানুষের ঢল। এসময় সিটি মেয়র অভিযোগ করেছেন আগামী নির্বাচন থেকে বিরত রাখতেই তার ওপর হামলা হয়েছে। হামলাকারী জেএমবি অথবা জঙ্গি সদস্য হতে পারে।

গত রোববার আসরের নামাজের পর নিজ বাড়ির সামনে একটি ফার্নিচারের দোকানে মেয়রের ওপর হামলা চালায় সাদ্দাম নামের এক যুবক। এসময় উপস্থিত লোকজন তাকে আটক করে পুলিশে দেয়। এ ঘটনার পরদিনই প্রথম আন্দোলনে যায় সিটি করপোরেশনের কর্মকর্তা-কর্মচারী ঐক্য পরিষদ। একারনে সোমবার ও মঙ্গলবার করপোরেশনে নাগরিক সেবা পেতে চরম ভোগান্তি পোহাতে হয়েছে  সাধারণ মানুষজনকে।

ওই হামলার ঘটনার প্রতিবাদে বুধবার সকাল থেকেই উত্তাল হয়ে উঠে রংপুর। নগরীর ৩৩টি ওয়ার্ড থেকে আসা খন্ড খন্ড মিছিলের শ্লোগানে মুখরিত হয়ে ওঠে নগরীর ব্যস্ততম এলাকাগুলো। সকাল ১১টায়  শাপলা চত্বর থেকে প্রেসক্লাব হয়ে সিটি করপোরেশন গেট ছাড়িয়ে যায় দীর্ঘ মানব প্রাচীরে। এতে প্রায় কয়েক হাজার মানুষ রাস্তার দু’পাশে দাড়িয়ে অংশ নেন। তারা এ ঘটনার নেপথ্যের কারন ও কে বা কারা জড়িত তা জনসমুখে প্রকাশের জন্য পুলিশ প্রশাসনের কাছে দাবি জানান।

এসময় সিটি মেয়র ও কাউন্সিলরসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতারা বক্তব্য রাখেন। তারা  ঘটনার মাস্টারমাইন্ডদের সনাক্ত না করায় আশংকা প্রকাশ করেন কাউন্সিলররা।

এদিকে মানববন্ধনে অংশ নিয়ে অংশগ্রহনকারীদের সাথে হাত মেলান মেয়র। এসময় আবেগঘন বক্তৃতায় বলেন, আমাকে মেরে ফেলার জন্যই হামলা চালানো হয়েছিল। হামলাকারী যুবক জঙ্গি অথবা জেএমবি সদস্য হতে পারে। নির্বাচন থেকে দুরে রাখতেই এই হামলা করা হয়েছে। কারন ৭ ফুট দুর থেকে আমার বুকে লাথি মারা হয়েছে। আমি পড়ে গেলে আমাকে মেরে ফেলতো।

হামলার ঘটনায় মেয়রের একান্ত সচিব রাশেদুল ইসলাম বাদি হয়ে মামলা করেন। আদালতের মাধ্যমে আটক সাদ্দামকে ৫ দিনের রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ। তবে এখনও কোন ক্লু উদ্ধার হয় নি।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

রংপুরে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১ 

255

রংপুর, ৩ জুলাই : রংপুরের মিঠাপুকুর উপজেলার মমিনপুরে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ একজন নিহত হয়েছেন। পুলিশের দাবি, নিহত ব্যক্তি ডাকাত। রবিবার রাতে কথিত এই বন্দুকযুদ্ধ হয়।

নিহত ব্যক্তির নাম  ইদ্রিস আলী। সে মিঠাপুকুর উপজেলার মমিনপুর গ্রামের সাখাওয়াত হোসেনের ছেলে।

বন্দুকযুদ্ধে নিহতের বিষয়টি নিশ্চিত করে মিঠাপুকুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোজাম্মেল হক জানান, বন্দুকযুদ্ধের এই ঘটনায় পুলিশের সাত সদস্য আহত হয়েছেন। ঘটনাস্থল থেকে একটি পিস্তল, দুটি গুলি ও চারটি ধারালো অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

রংপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৩ 

11

রংপুর, ৩০ জুন : রংপুর জেলার তারাগঞ্জ উপজেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় তিনজন নিহত হয়েছেন। এছাড়াও কমপক্ষে ২০ জন আহত হয়েছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সামনে ঢাকাগামী একটি বাস দাঁড়িয়ে ছিল। এসময় পিছন দিক থেকে অপর একটি বাস এসে ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই তিনজন মারা যান।

তারাগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল লতিফ মিয়া বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

রংপুরে ট্রাক উল্টে নিহত ১৬ 

88

রংপুর, ২৪ জুন : রংপুরের পীরগঞ্জ উপজেলার সিমেন্টবাহী ট্রাক উল্টে ১৬ জন নিহত হয়েছেন। এসময় আহত হয়েছেন ৮ জন। শনিবার ভোর সাড়ে ৫টার দিকে উপজেলার কোলাবাড়ি এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

পীরগঞ্জ থানার ওসি রেজাউল করীম জানান, সিমেন্টবাহী ট্রাকটিতে ২৮-৩০ জন গাজীপুর থেকে রংপুরে যাচ্ছিল। পথে কোলাবাড়ি এলাকায় ট্রাকটি উল্টে গেলে ঘটনাস্থলেই ১১ জন নিহত হন। এসময় আহত হন ১৩ জন।

আহতদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হলে সেখানে ৫ জনের মৃত্যু হয়।

পরে আহত ৮ জনকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। এদের মধ্যে ৫ জনের অবস্থা আশংকাজনক।

নিহতদের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। তবে তাৎক্ষণিক হতাহতদের পরিচয় জানাতে পারেননি ওসি।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

ড্রেন নির্মাণ কাজের উদ্বোধন-রসিক মেয়র 

0000

আব্দুর রহমান রাসেল, রংপুর, ১৮ জুন : মিউনিসিপ্যাল গভার্নেন্স এ্যান্ড সাভিসেস প্রজেষ্ট(এমজিএসপি) ও বাংলাদেশ সরকারের  অর্থায়নে রংপুর সিটি কর্পোরেশনের বাস্তবায়নে ১২ কোটি টাকা ব্যয়ে জাহাজ কোম্পানী মোড় হতে কেরামতিয়া মসজিদ নাসিরাবাদ মসজিদ,কেরানী পাড়া চৌরাস্তা মোড়,লালকুঠি মোড়, ধাপ বড় মসজিদ হয়ে বুড়ির হাট পর্যন্ত প্রায় ৬ কিলোমিটার রাস্তা পুর্ণবাসন বাসন ও চওড়াকরন ও ২ কিলোমিটার ড্রেন নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করেন রংপুর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র বীর মুক্তিযোদ্ধা  সরফুদ্দীন আহমেদ ঝন্টু (প্রতিমন্ত্রী )।

গতকাল রোববার সকাল সাড়ে ১১ টায়  উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন রংপুর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র বীর মুক্তিযোদ্ধা  সরফুদ্দীন আহম্মেদ ঝন্টু, (প্রতিমন্ত্রী)। বিশেষ ছিলেন রংপুর সিটি কর্পোরেশনের কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র গোলাম কবীর কাজল, রংপুর সিটি কর্পোরেশনের কাউন্সিলর তৌহিদুল ইসলাম, কাউন্সিলর মাহবুবার রহমান, সংরক্ষিত আসনের মহিলা কাউন্সিলর জাফরিন ইসলাম রীপা, সংরক্ষিত আসনের মহিলা কাউন্সিলর হাসনা বানু, , রংপুর  জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক লক্ষিন রায়, সমাজসেবক আজহারুল ইসলাম প্রমুখ  এসব আলাদা অনুষ্ঠানে  উপস্থিত ছিলেন রসিকের তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী এমদাদ হোসেন রসিকের নির্বাহী প্রকৌশলী আজম আলী প্রমুখ।

পরে তিনি রসিক কার্যালয়ে রংপুর সিটি কর্পোরেশনের অবসরপ্রাপ্ত কর্মচারী পাম্পচালক মোঃ আখতারুজ্জামান কে তার অবসর ভাতার ১৬ লক্ষ ৫৬ হাজার ৩১২ টাকার চেক তার হাতে প্রদান করেন।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

আমি নিজেও একজন গণমাধ্যমকর্মী বেরোবি উপাচার্য 

ইসমাইল রিফাত, বেরোবি, ১৭ জুন : বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিক সমিতির প্রধান পৃষ্ঠপোষক হতে পেরে গর্ববোধ করছি, সব সময় গণমাধ্যমকর্মীদের পাশে থাকি এবং থাকব। কেননা, আমি নিজেও একজন গণমাধ্যমকর্মী। এমনকি আমি বেশ কয়েকটা পত্রিকার সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করছি বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিক সমিতির ইফতার মাহফিলে এমনটাই বলেন সদ্য যোগদান করা বেগম রোকেয়া বিশ^বিদ্যালয়ের  উপাচার্য অধ্যাপক ড. নাজমুল আহসান কলিমউল্লাহ।
শুক্রবার (১৬ জুন) বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাফেটেরিয়ায় বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতির সভাপতি তপন কুমার রায় এর সভাপতিত্বে ইফতার মাহফিলটি অনুষ্ঠিত হয়।

উক্ত অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মোঃ গোলাম রব্বানী  তিনি বলেন, আমরা দেখছি বেগম রোকেয়া বিশ^বিদ্যালয়ের সাংবাদিক সমিতির সাংবাদিকরা বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রকাশ করছে, বিশ^বিদ্যালয়কে সারা বিশে^র কাছে তুলে ধরছে।

আরো বক্তব্য রাখেন বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক তাবিউর রহমান প্রধান  তিনি বলেন , সাংবাদিকতা এমন একটা পেশা যেখানে আপন বলতে কেউ থাকে না , বস্তুনিষ্ঠ সংবাদে অনেক সময় বন্ধু শত্রু হয়ে যায়।

উক্ত অনুষ্ঠানে সাংবাদিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক নুর ইসলাম সংগ্রাম এর সঞ্চালনে উপস্থিত ছিলেন,বিশ^বিদ্যালয়ের শিক্ষক সাব্বির আহমেদ চৌধুরী, কমলেশ চন্দ্র রায়, মোঃ নুরুজ্জামান আরো উপস্থিত ছিলেন বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ শাখার সাধারণ সম্পাদক মোঃ কামরুল হাসান নোবেল শেখ, দৈনিক সংবাদ রংপুর ব্যুরো প্রধান লিয়াকত হোসেন বাদল, দৈনিক নয়া দিগন্ত রংপুর ব্যুরো প্রধান মাজহার মান্নান, গণমাধ্যম কর্মী,গোয়েন্দা সংস্থা কর্মকর্তা, আইনশৃঙ্খল বাহিনী সহ সমিতির সকল সদস্যরা।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

উদ্যোগ নেই ক্যাফেটেরিয়া চালু করার, আহবায়কের অব্যহতি 

4

ইসমাইল রিফাত, বেরোবি, ১৫ জুন : বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় নবম বছর চলছে। বছর পেরিয়ে একের পর এক উপাচার্যের রদ বদল হলেও চালু হয়নি  ক্যাফেটেরিয়া। ক্যাফেটেরিয়া ভবনটি নির্মানের পর চালু করতে দুটি কমিটি গঠন করা হলেও চালু হয়নি সেটি। নানা অসন্তুষ্টি দেখিয়ে পদত্যাগ করেছেন দায়িত্বপ্রাপ্তরা। সবশেষ গত বৃহস্পতিবার ক্যাফেটেরিয়া পরিচালনা কমিটির আহবায়কের পদ থেকে অব্যহতির জন্য আবেদন করেছেন অধ্যাপক ড. সাইদুল হক।

ক্যাফেটারিয়া পরিচালনা কমিটির আহবায়ক পদ থেকে সদ্য অব্যহতি চাওয়া অধ্যাপক ড. সাইদুল হক বলেন, গত বৃহস্পতিবার আহবায়ক কমিটি থেকে অব্যহতি চেয়ে রেজিষ্টার বরাবর অব্যাহতি পত্র জমা দিয়েছি। বিগত দুই বছর আহবায়ক কমিটিতে থাকার পরও ক্যাফেটেরিয়া চালুর সুযোগ পেলাম না, তাহলে এই দায়িত্বে থেকে লাভ কি?

তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন, নতুন উপাচার্য মহাদয়  নতুন কমিটি গঠন করে যেন অতি দ্রুত ক্যাফেটেরিয়া চালু করার ব্যবস্থা করতে পারে। এই প্রত্যাশায় আমি আমার দায়িত্ব থেকে প্রত্যাহার পত্র জমা দিয়েছি। ক্যাফেটেরিযা চালু হোক এটা আমারও চাওয়া।

এদিকে ক্যাম্পাসে খাবারের কোনো দোকান নেই। খাবার খেতে শিক্ষার্থীদের ক্যাম্পাসের বাইরে যেতে হয়। যা কষ্টকর বলে জানায় শিক্ষার্থীরা। শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের বরাবরই দাবি ছিল ক্যাফেটেরিয়া চালু করা হোক। বিগত উপাচার্য বারবার আশ্বস্থ করলেও ক্যাফেটেরিয়া চালু করেননি। শিক্ষার্থীদের অভিযোগ উপাচার্য বারবার কমিটি গঠন করে শিক্ষার্থীদের সাথে তামাশা করেছেন মাত্র।

অবশ্য দায়িত্ব শেষ হওয়ার আগের দিন ক্যাফেটেরিয়া চালু করতে না পারার ব্যর্থতা স্বীকার করে করে সদ্য সাবেক উপাচার্য ড. এ কে এম নুর-উন-নবী জানান , ক্যাফেটিরিয়া চালু করার জন্য আমি ক্যাফেটেরিয়া ব্যবস্থাপনা কমিটি গঠন করেছিলাম তারা চালু করতে না পারলে আমার এখানে কিছু করার নেই, ক্যাফেটেরিয়া চালু হওয়ার বিষয়টা সম্পূর্ণ তাদের উপর নির্ভর করছে।

ক্যাফেটেরিয়ার চালু না হওয়ার কারণ জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সভাপতি ড. তুহিন ওয়াদুদ বলেন, আগের উপাচর্যের স্বদিচ্ছার অভাবে ক্যাফেটেরিয়া চালু হয়নি । তবে তিনি আশাবাদী নতুন উপাচার্য মহাদয়  অতি দ্রুত ক্যাফেটেরিয়া চালু করবেন ।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

চিকিৎসাধীন সাংবাদিক আলী আশরাফের পাশে-প্রতিমন্ত্রী রাঙ্গা 

0

আব্দুর রহমান রাসেল, রংপুর, ১৫ জুন : স্ট্রোক করে গুরতর অবস্থায় রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রংপুর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ও দৈনিক বায়ান্নর আলো পত্রিকার নির্বাহী সম্পাদক বীরমুক্তিযোদ্ধা আলী আশরাফ এর পাশে দাঁড়ালেন স্থানীয় সরকার ও পল্লী উন্নয়ন সমবায় প্রতিমন্ত্রী মসিউর রহমান রাঙ্গা এমপি। তিনি গতকাল সকালে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে গিয়ে আলী আশরাফের চিকিৎসার ব্যাপারে চিকিৎসকদের কাছে খোঁজ খবর নেন এবং সুষ্ঠভাবে চিকিৎসা প্রদানের অনুরোধ করেন। পরে প্রতিমন্ত্রী তাঁর সু-চিকিৎসার জন্য আর্থিক সহযোগিতা প্রদান করেন। এসময় রংপুর মেডিকেল কলেজের চিকিৎসকগণ উপস্থিত ছিলেন।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

সেনাবাহিনী রংপুর এরিয়ার উদ্যোগে ২১ হাজার চারা রোপন 

00

আব্দুর রহমান রাসেল, রংপুর, ১৫ জুন : সেনাবাহিনী রংপুর এরিয়ার উদ্যোগে ২১ হাজার বিভিন্ন জাতের ফলজ, বনজ ও ঔষধী গাছের চারা রোপন করা হয়েছে। গতকাল বুধবার সকালে রংপুর সেনানিবাসে বৃক্ষরোপন কর্মসূচীর উদ্বোধন করেন ৬৬ পতাদিক ডিভিশনের জিওসি এরিয়া কমান্ডার মেজর জেনারেল মোঃ মাসুদ রাজ্জাক। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, সেনাবাহিনীর উর্ধ্বতন কর্মকর্তা, ইউনিট অধিনায়কসহ সেনা সদস্যরা। একই সাথে খোলাহাটি ও সৈয়দপুর সেনানিবাসেও বৃক্ষরোপন কর্মসূচীর উদ্বোধন করা হয়।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর