২২ সেপ্টেম্বর ২০১৭
রাত ৩:২৫, শুক্রবার

রোহিঙ্গাদের হত্যার প্রতিবাদে কচুবাড়ীয়ায় মানববন্ধন

রোহিঙ্গাদের হত্যার প্রতিবাদে কচুবাড়ীয়ায় মানববন্ধন 

0000

রোকনুজ্জামান, কুষ্টিয়া, ২০ সেপ্টেম্বর : মিয়ানমারে রোহিঙ্গা মুসলমানদের গণহত্যা, নির্যাতনের প্রতিবাদে কুষ্টিয়ায় মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বুধবার বেলা সাড়ে ১১টায় মিরপুর উপজেলার কুষ্টিয়া-মেহেরপুর মহাসড়কের কচুবাড়ীয়া এলাকায় কচুবাড়ীয়া যুব সমাজের উদ্দ্যোগে এ মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠত হয়। মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন নিমতলা কলেজের শিক্ষক রুহুল আমীন, বশির আহম্মেদ, মোস্তফা রায়হান, নিমতলা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুর রহমান, সহকারী শিক্ষক রবিউল ইসলাম, যুব সমাজের পক্ষে বক্তব্য রাখেন সোহেল রানা, পিয়াল আহম্মেদ, তৌফিক আহম্মেদ, সবুজ আহম্মেদ প্রমুখ। এসময় আরো বক্তব্য রাখেন শিশির আহম্মেদ, জাহিদ হাসান, শিবলু, তুহিন আহম্মেদ, আব্দুল আলীম, শিপন আহম্মেদ, দিপু আহম্মেদ, রুবেল রানা প্রমুখ। এসময় বক্তরা রোহিঙ্গাদের নির্যাতন বন্ধে জাতিসংর্ঘ সহ বিশ্ব মুসলিমকে এগিয়ে আসার আহবান জানিয়ে বলেন, জাতি ধর্মবর্ণ নির্বিশেষে মানবতাকে প্রাধান্য দিতে হবে। যে সকল রোহিঙ্গা বাংলাদেশে প্রবেশ করেছে তাদেরকে মায়ানমারের নাগরিকত্ব দিয়ে ফিরিয়ে নিতে জোর দাবী জানান। পরে এক বিক্ষোভ মিছিল এবং মিয়ানমারে প্রধানমন্ত্রী অং সান সুচি’র কুশপুত্তলিকা দাহ করা হয়।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

কুষ্টিয়ায় ধর্মঘটে পরিবহন শ্রমিকরা 

69

কুষ্টিয়া, ১৭ সেপ্টেম্বর : তিন শ্রমিককে আটকের প্রতিবাদ ও তাদের মুক্তি দাবিতে কুষ্টিয়ায় অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘট পালন করছেন পরিবহন শ্রমিকরা।

আজ রবিবার সকাল ৬টা থেকে জেলার সব রুটে একযোগে এই ধর্মঘট শুরু হয়। স্থানীয় পরিহন শ্রমিক সংগঠনগুলোর ডাকা এই ধর্মঘটে সমর্থন জানিয়েছে জেলার পরিবহন মালিক সংগঠনগুলোও।

ধর্মঘটের কারণে কুষ্টিয়া থেকে কোনো রুটে যাত্রীবাহী বাস ও ট্রাক চলাচল করছে না। এতে দুর্ভোগের শিকার হচ্ছেন সাধারণ যাত্রীরা।

কুষ্টিয়ার বটতৈল এলাকায় যাত্রীবাহী একটি বাসে তল্লাশি চালিয়ে এক কেজি হেরোইন উদ্ধারের পর র্যা ব সদস্যরা ওই বাসের চালক, সুপারভাইজার ও হেলপারকে আটক করে। পরে তাদের আটকের প্রতিবাদে ও মুক্তি দাবিতে রোববার থেকে জেলার সব রুটে পরিবহন ধর্মঘটের ডাক দেয় পরিহন সংগঠনগুলো।

কুষ্টিয়ার বাস মিনিবাস মালিক গ্রুপের সভাপতি আজগর আলী জানান, ‘তিন বাস শ্রমিককে আটক করে মাদক মামলায়  কারাগারে পাঠানো হয়েছে। শ্রমিকরা এর প্রতিবাদ জানিয়ে কর্মবিরতি পালন করছে। মালিকরাও সমর্থন দিয়েছে। তবে আমরাও চাই প্রকৃত মাদক ব্যবসায়ীকে যেন গ্রেফতার করা হয়।’

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

কুষ্টিয়ায় পাচারকালে ৫০০ বস্তা সরকারি চাল জব্দ 

23

কুষ্টিয়া, ৩১ আগস্ট : কুষ্টিয়ায় পাচারের সময় এক ট্রাক সরকারি চাল জব্দ করেছে পুলিশ। বুধবার সন্ধ্যায় কুষ্টিয় সদর উপজেলার বিত্তিপাড়া বাজার এলাকা থেকে এসব চাল জব্দ করা হয়।

এ সময় পুলিশ ওই ট্রাকের চালককে আটক করেছে। তবে চাল ব্যবসায়ী কালাম হোসেন পলাতক রয়েছেন বলে জানায় পুলিশ।

কুষ্টিয় ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রতন শেখ জানান, সরকারের খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির ৫০০ বস্তাচাল স্থানীয় চাল ব্যবসায়ী আবুল কালাম বিত্তিপাড়া বাজারের একটি গুদামে আনলোড করছিলেন।

এ সময় স্থানীয়দের দেয়া সংবাদে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে ট্রাকভর্তি চাল জব্দ করে। তবে চালের মালিক বলে দাবিদার স্থানীয় চাল ব্যবসায়ী কালাম হোসেন পলাতক রয়েছেন।

তাৎক্ষণিকভাবে চালের কোনো বৈধ কাগজপত্র দেখাতে না পারায় চালভর্তি ট্রাক ও ট্রাকের চালকে আটক করে থানা হেফাজতে নেয়া হয়েছে। ৩০ কেজির এই বস্তায় লেখা রয়েছে ‘শেখ হাসিনার বাংলাদেশ, ক্ষুধা হবে নিরুদ্দেশ।’

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

ঢাকা-খুলনা রেল যোগাযোগ বন্ধ 

52

কুষ্টিয়া, ২৬ আগস্ট : কুষ্টিয়ার পোড়াদহে খুলনা থেকে ছেড়ে আসা রাজশাহীগামী সাগরদাড়ি এক্সপ্রেসের ইঞ্জিনসহ একটি বগি লাইনচ্যুত হয়েছে। এতে খুলনার সঙ্গে উত্তরবঙ্গসহ ঢাকার রেল যোগাযোগ বন্ধ রয়েছে। শুক্রবার রাত পৌনে ৮টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

পোড়াদহ স্টেশন মাস্টার শরীফুল ইসলাম জানান, সন্ধ্যা ৭টা ৪৬ মিনিটে রাজশাহীগামী সাগরদাড়ি একপ্রেস পোড়াদহ রেলওয়ে জংশনের প্রধান গেইটের সামনে যাওয়ার পর ট্রেনটির ইঞ্জিনসহ একটি বগি লাইনচ্যুত হয়। এতে আপ এবং ডাউনের সব ট্রেন চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। ফলে খুলনার সঙ্গে উত্তরবঙ্গসহ ঢাকার রেল যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যায়।

শরীফুল ইসলাম আরো জানান, দুর্ঘটনা কবলিত ট্রেনটিকে উদ্ধারের জন্য এরই মধ্যে ঈশ্বরদী থেকে রিলিফ ট্রেন আনতে খবর পাঠানো হয়েছে। তবে বগি ও ইঞ্জিন উদ্ধার করে রেলযোগাযোগ স্বাভাবিক হতে আরো সময় লাগবে।

তবে শনিবার সকালে রেলওয়ের পাকশি কন্ট্রোল রুম জানায়, ডাউন লাইন চালু হওয়ায় খুলনার সঙ্গে রেল যোগাযোগ আংশিক চালু হয়েছে। ঈশ্বরদী থেকে তিস্তা এক্সপ্রেসটি এরই মধ্যে পোড়াদহ রেলস্টেশন অতিক্রম করেছে।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

কুষ্টিয়ায় বন্দুকযুদ্ধে নব্য জেএমবি নিহত 

10

কুষ্টিয়া, ২৫ আগস্ট : কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলায় পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে আরমান আলী (৪২) নামে এক নব্য জেএমবি সদস্য নিহত হয়েছেন। ঘটনাস্থল থেকে একটি পিস্তুল, দুই রাউন্ড গুলি, একটি ম্যাগজিন ও তিনটি ধারালো চাপাতি উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনায় চার পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার রাত ৩টার দিকে উপজেলার বোয়ালিয়া মাঠের বটতলার তিন নম্বর রাস্তার কাছে এ ঘটনা ঘটে। আরমান আলী জেলার ভেড়ামারা উপজেলার ঠাকুর দৌলতপুর গ্রামের আছান আলীর ছেলে।

দৌলতপুর থানার ওসি শাহ দারা খান জানান, বৃহস্পতিবার রাত ৩টার দিকে নাশকতা জন্য একদল সন্ত্রাসী বোয়ালিয়া মাঠের বটতলায় গোপন বৈঠক করছিল। এমন খবর পেয়ে দৌলতপুর থানা পুলিশ সেখানে অভিযানে গেলে সন্ত্রাসীরা তাদের লক্ষ্য করে গুলি ছুড়ে। এ সময় পুলিশও পাল্টা গুলি চালালে একজন গুলিবিদ্ধ হন।

পরে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। ঘটনাস্থল থেকে গুলিবিদ্ধ ব্যক্তিকে উদ্ধার করে দৌলতপুর উপজেলা হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

মরদেহের প্রাথমিক সুরতহাল শেষে দৌলতপুর থানার উপ-পরিদর্শক হারান নিহতের নাম আরমান আলী বলে নিশ্চিত করেন এবং তিনি নব্য জেএমবি সদস্য বলে জানান।

আরমান আলী ১ জুলাই ভেড়ামারার জঙ্গি আস্তানায় (একটি বাড়ি) ‘টেপিট পাঞ্চ’ বিশেষ অভিযানে গ্রেপ্তারকৃত নারী জঙ্গি টলি আরা খাতুনের দ্বিতীয় স্বামী। তার বিরুদ্ধে অস্ত্র ও বিস্ফোরক আইনে একাধিক মামলা রয়েছে।

পুলিশের ভাষ্য অনুযায়ী ‘বন্দুকযদ্ধে’ এসআই শরিফুল, এএসআই সুব্রত, কনস্টেবল সজিব ও নওশাদ আহত হয়েছেন বলে জানা গেছে। তাদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

সাগর হত্যা মামলার প্রধান আসামি বন্দুকযুদ্ধে নিহত 

544

কুষ্টিয়া, ২১ আগস্ট : কুষ্টিয়ায় পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে এনামূল হক (৩০) নামে এক অপহরণকারী নিহত হয়েছে। এনামূল কলেজছাত্র সাগর সাহা হত্যা মামলার প্রধান আসামি ছিল।

পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে একটি বিদেশি পিস্তল, দুই রাউন্ড গুলি, তিনটি গুলির খোসা ও দুটি হাসুয়া উদ্ধার করেছে।

সোমবার ভোর ৪টার দিকে কুষ্টিয়া সদর উপজেলার হরিনারায়ণপুর বেড়িবাঁধ এলাকায় একটি কলাবাগানে এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে।

কুষ্টিয়া গোয়েন্দা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ ছাব্বিরুল ইসলাম জানান, হরিনারায়ণপুর বেড়িবাঁধ এলাকায় একদল অপহরণকারী অস্ত্রসহ অবস্থান করছে এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ গভীর রাতে সেখানে অভিযান চালায়।পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে অপহরণকারীরা গুলি ছোড়ে। এতে পুলিশও পাল্টা গুলি চালালে উভয়ের মধ্যে বেশ কিছুক্ষণ বন্দুকযুদ্ধ চলে। পরে অপহরণকারীর দলটি পালিয়ে গেলে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে আহত এনামূল হককে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। বন্দুকযুদ্ধে পুলিশের তিন কনস্টেবল আহত হয়েছে।

পুলিশ জানায়, নিহত এনামূল হক শিবপুর এলাকার প্রদীপ সাহার ছেলে। সে অপহৃত কলেজছাত্র সাগর সাহা হত্যা মামলার মূল আসামি।

উল্লেখ্য, গত ১৬ আগস্ট সন্ধায় কলেজছাত্র সাগর সাহা অপহৃত হয়। এর তিনদিন পর ১৯ আগস্ট হরিনারায়ণপুর এলাকার একটি বিদ্যালয়ের পরিত্যক্ত বাথরুম থেকে সাগরের লাশ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় সাগর সাহার বাবা ইবি থানায় এনামূল হককে প্রধান আসামি করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

কুষ্টিয়ায় বজ্রপাতে শিশুসহ নিহত ৫ 

88

কুষ্টিয়া, ২ জুলাই : বজ্রপাতে কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলার খোলা মাঠে শিশুসহ চার কৃষি শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। এসময় গুরুতর আহত হয়েছেন এক নারী শ্রমিকসহ আরো চারজন।

আজ রবিবার দুপুর দেড়টার দিকে উপজেলার ছাতিয়ান ইউনিয়নের আটিগ্রাম-ধলসার মাঠে এ বজ্রপাতের ঘটনা ঘটে।

মিরপুর থানার ওসি নাসির উদ্দিন ও স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান জসিম উদ্দিন হতাহতের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বজ্রপাতে নিহতরা হলেন- পয়ারী গ্রামের মোশারফ হোসেন, কুশামারী গ্রামের আব্দুস সাত্তার, আটিগ্রামের শাহিন উদ্দিন ও আবুল কাশেম। এছাড়া ১২ বছরের এক শিশু নিহত হলেও তার পরিচয় নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

ওসি ও ইউপি চেয়ারম্যান জানান, সকাল থেকে কৃষি শ্রমিকরা মাঠে কাজ করছিলেন। দুপুর দেড়টার দিকে বজ্রপাতের ঘটনা ঘটে। এতে ঘটনাস্থলেই নিহত হন পাঁচজন। এসময় আরও বেশ কয়েকজন আহত হন।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

কুষ্টিয়ায় উগ্রবাদী আস্তানায় অভিযানে ৩ নারী আটক 

55

কুষ্টিয়া, ১ জুলাই : কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা উপজেলা শহরে একটি সন্দেহভাজন উগ্রবাদী ঘিরে অভিযানে নেমেছে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী। গতকাল শুক্রবার গভীর রাত থেকে উপজেলার বামনপাড়ার তালতলা এলাকার নাসিমা খাতুনের মালিকানাধীন ওই টিনশেড বাড়িটি ঘিরে রাখা হয়েছে। আজ শনিবার সকালেও অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছে ওই বাড়ি থেকে সন্দেহভাজন উগ্রবাদী হিসেবে তিন নারীকে আটক করা হয়েছে। তাদের সঙ্গে দুই শিশু রয়েছে। এ ছাড়া সুইসাইডাল ভেস্ট, পিস্তল, ম্যাগাজিন ও গান পাউডারও উদ্ধার করা হয়েছে।

আটককৃতদের মধ্যে নব্য জামাআ’তুল মুজাহিদীন বাংলাদেশের (জেএমবি) নেতা আইয়ুব বাচ্চুর স্ত্রী তিথি, সেকেন্ড ইন কমান্ড রাশেদের স্ত্রী সুমাইয়া রয়েছেন বলে জানিয়েছেন ভেড়ামারা সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কামরুল হাসান।

পুলিশ বলছে প্রায় দুই মাস আগে এই টিনশেড বাড়িটি আটককৃতরা ভাড়া নেয়। দুপুর নাগাদ ঢাকা থেকে বোমা নিষ্ক্রিয়কারী দল এসে পৌঁছালে পরবর্তী অভিযান চালানো হবে। বাড়ির ভেতরে আরও কে বা কারা আছে সে বিষয়ে পুলিশ কিছু বলতে পারেনি। আশপাশের বাড়ি থেকে সবাইকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

কুষ্টিয়ায় জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে বাড়ি ঘেরাও 

01

কুষ্টিয়া, ১ জুলাই : কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা উপজেলায় বামনপাড়া তালতলা এলাকায় টিনশেডের একটি বাড়ি ঘিরে রেখেছে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। গতকাল শুক্রবার রাত ১২টা থেকে সেখানে অভিযান চলছে। আজ শনিবার সকালে ওই বাড়ি থেকে নব্য জেএমবির আমির আইয়ুব বাচ্চুর স্ত্রীসহ তিন নারী ও দুই শিশুকে উদ্ধার করে থানায় নেওয়া হয়েছে।

এই বাড়ির মালিক নাসিমা খাতুন। তিনি ভেড়ামারা উপজেলার স্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তরের অফিস সহকারী। ঘিরে রাখা টিনশেডের এই বাড়ির পুরোটা ভাড়া দেওয়া। বাড়ি থেকে ২০০ গজ দূরে নিজের আরেকটি তিনতলা বাড়িতে থাকেন নাসিমা খাতুন।

মোবাইল ফোনে এ প্রতিবেদককে দেওয়া নাসিমা খাতুনের ভাষ্য, চার-পাঁচ মাস আগে টলি খাতুন নামের এক নারী বাড়িটির একটি অংশ ভাড়া নেন। এখানে দুটি কক্ষ রয়েছে। ভাড়া নেওয়ার সময় টলি খাতুন জানান, তাঁর স্বামীর নাম আরমান আলী। তিনি সপ্তাহে দুই-তিন দিন এসে বাড়িতে থাকতেন। ভাড়া দেওয়ার পরপরই ভাড়াটের তথ্য নিয়ে থানায় কাগজপত্র জমা দিয়েছিলেন বলে জানান নাসিমা খাতুন। পাঁচ মাস আগে একই এলাকার অন্য বাড়িতে ভাড়া ছিলেন টলি খাতুন। সেখানে দুই-তিন বছর ছিলেন। টলি খাতুন এলাকায় পরিচিত হওয়ায় নিজের বাসা ভাড়া দেন নাসিমা।

নাসিমা খাতুনের তথ্যমতে, দুই-তিন দিন আগে ওই বাসায় আরও দুজন নারী আসেন। এ ব্যাপারে জানতে চাইলে তাঁদের ননদ বলে পরিচয় দেন টলি খাতুন। টলি খাতুন বাড়িতে সেলাইয়ের কাজ করেন। আজ সকালে তিনি জানতে পারেন, টলি খাতুনসহ ওই দুই নারীকে পুলিশ থানায় নিয়ে গেছে।

সকালে যোগাযোগ করা হলে এ তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেন কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার এস এম মেহেদি হাসান। তিনি বলেন, গোপন তথ্যের ভিত্তিতে ঢাকার কাউন্টার টেররিজম ইউনিট ও জেলা পুলিশ যৌথভাবে এ অভিযান শুরু করে, যা এখনো চলছে। এখন পর্যন্ত সেখান থেকে একটি সুইসাইড ভেস্ট ও একটি পিস্তল উদ্ধার করা হয়েছে।

এস এম মেহেদি হাসান বলেন, ধারণা করা হচ্ছে, ওই টিনশেড বাড়ির ভেতর বড় ধরনের বিস্ফোরক দ্রব্য রয়েছে। বোমা নিষ্ক্রিয়কারী দলকে খবর দেওয়া হয়েছে। তারা এলে ঘরের ভেতর অভিযান চালানো হবে।-প্রথম আলো।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

খুন করে ফল বিক্রি করছিলেন যুবকটি! 

796

কুষ্টিয়া, ২১ জুন : কুষ্টিয়া শহরের চৌড়হাস মোড় এলাকায় একটি ফলের দোকান থেকে রবিউল ইসলাম (৩০) নামের ফল ব্যবসায়ীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার বিকাল ৪টার দিকে পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে।

রবিউল ইসলাম মাদারীপুরের টেকেরহাট উপজেলার শংকরদি গ্রামের বাসিন্দা। এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে নিহত রবিউলের খালাতো ভাই নুর আলমকে (৩২) আটক করেছে পুলিশ।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, চৌড়হাস এলাকায় মামা নুর হোসেনের বাড়িতে দুই খালাতো ভাই রবিউল ও নুর দীর্ঘদিন ধরে বসবাস করছেন। ভাগনেরা গরিব হওয়ায় মামা তাদের ফলের ব্যবসার সঙ্গে যুক্ত করেন। এ জন্য চৌড়হাস মোড়ে মামা-ভাগনে নামের একটি ফলের দোকান করে দেন তিনি। আজ সকালে বাড়ি থেকে দোকানে যান রবিউল। সেখানে নুর আলমও যান।

এরপর দুপুরের দিকে মামা দোকানে গিয়ে রবিউলের খোঁজ নিলে নুর কোনো উত্তর দেননি। নুরের গতিবিধি সন্দেহজনক মনে হলে তাকে পরিবারের অন্য সদস্যরা জেরা করেন। একপর্যায়ে পরিবারের লোকজন কুষ্টিয়া মডেল থানা-পুলিশকে খবর দেয়। বিকালে পুলিশ গিয়ে দোকানের পেছনে বালু চাপা দেওয়া অবস্থায় একটি প্লাস্টিকের ড্রামের ভেতর থেকে রবিউলের জবাই করা লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। পরে ময়নাতদন্তের জন্য লাশ কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়।

মামা নুর হোসেন বলেন, ‘দুই ভাগনে গরিব হওয়ায় তাদের আমি আশ্রয় দিয়ে ব্যবসায় লাগিয়ে দিই। তবে দুজনের মধ্যে প্রায় সময় ঝগড়া হতো। মারামারিও হয়েছে বিভিন্ন সময়। তবে হত্যার মতো ঘটনা ঘটতে পারে তা ধারণাও করতে পারিনি।’

এ ঘটনায় কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার এস এম মেহেদী হাসানসহ পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

কুষ্টিয়া মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) রবিউল ইসলাম বলেন, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে যে নুর আলম পূর্ব বিরোধের জের ধরে এ ঘটনা ঘটিয়েছেন। এ ঘটনায় আরো কেউ জড়িত আছে কি না, তা তদন্ত করা হচ্ছে। -প্রথম আলো।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

কুষ্টিয়ায় ফেনসিডিলসহ আটক ২ 

32456

কুষ্টিয়া, ২২ জুন (জাস্ট নিউজ) : কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে ফেনসিডিল ও প্রাইভেটকারসহ মুকাদ্দেস (৪২) এবং প্রাইভেটকারের চালক স্বপনকে (২৫) আটক করেছে পুলিশ।

আজ মঙ্গলবার ভোরে উপজেলার বোয়ালিয়া ইউনিয়নের শেহালা বাজার থেকে তাদের আটক করা হয়। আটক মুকাদ্দেস শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী বলে জানা গেছে।

এ ব্যাপারে দৌলতপুর থানার ওসি শাহ দারা খান জানান, আটক মুকাদ্দেস ও স্বপন প্রাইভেটকারের ভিতর ফেনসিডিল নিয়ে যাচ্ছিল। খবর পেয়ে শ্যামপুর ক্যাম্পের পুলিশ ১২০ বোতল ফেনসিডিলসহ তাদের আটক করে। এসময় প্রাইভেটকার ও এর চালককেও আটক করা হয়।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

দৌলতপুরে কৃতি শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা ও ক্রেস্ট প্রদান 

রোকনুজ্জামান, কুষ্টিয়া, ১৮ মে : কুষ্টিয়া দৌলতপুর উপজেলার প্রাগপুর ইউনিয়নের মুসলিম নগর গ্রামের কৃতি শিক্ষার্থীদের নাবিল ফার্মেসী এন্ড মেডিকেল হলের সৌজন্যে সংবর্ধনা ও ক্রেস্ট  প্রদান করা হয়েছে । ১৮/০৫/১৭ ইং বৃহস্পতিবার সকাল ১০ টায় মুসলিম নগর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় মিলনায়তনে অনুষ্ঠান কার্যক্রম শুরু হয়।

উক্ত অনুষ্ঠান প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ১ নং প্রাগপুর ইউনিয়নেরর চেয়ারম্যান জনাব মোঃ আশরাফুজ্জামান মুকুল সরকার, বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মহিষকুন্ডি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জনাব আলহাজ্ব ডাঃ মোঃ আরিফুল ইসলাম, জে এমজি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জনাব মোঃ আশরাফুল ইসলাম নান্নু, ভেড়ামারা পি ডি বি সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সাবেক প্রধান শিক্ষক জনাব মোঃ আঃ সালাম বিশ্বাস, সাবেক মেম্বার জনাব মোঃ একরাম হোসেন মন্ডল।

অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন প্রাক্তন এ টি ও প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর জনাব আলহাজ্ব আলম হোসেন বিশ্বাস। অনুষ্ঠান উপস্থাপনায় ছিলেন নাবিল ফার্মেসীর সত্ত্বাধিকারী ডাঃ সাব্বির আহমেদ নিয়ামুল ও শিশির আহমেদ। সার্বিক সহযোগিতায় ছিলেন উপসহকারী মেডিকেল অফিসার জনাব ডাঃ নাজমুল হুসাইন সাগর।  উক্ত অনুষ্ঠানে জিপিএ ৫ প্রাপ্ত  কৃতি শিক্ষার্থী মুসতারী, আসাদুল্লাহ আল গালিব, ফারহানা তামান্না, তাসিরুল ইসলাম, সুরাইয়া ইয়াসমিন, সাদিয়া আফরিন ও শিশির আহমেদকে ফুলেল শুভেচ্ছা, একটি করে ক্রেস্ট ও শিক্ষা উপকরন বিতরন করা হয়।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

দায়সারা ভাবে চলছে ভেড়ামারা ডিপি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় 

88

রোকনুজ্জামান, কুষ্টিয়া, ১৮ মে : সুন্দর গোছালো স্কুল। সরকারী নিয়মে সকাল ৯টা থেকেই শুরু হয় স্কুল। যথা সময়ে শিক্ষক এবং শিক্ষার্থীরাও উপস্থিত হন বিদ্যাপীটে। ক্লাসে বসে শিক্ষার্থীরা। ঘন্টার পর ঘন্টা অপেক্ষা করে শিক্ষকের জন্য। কিন্তু ক্লাসে যান না শিক্ষকরা। এমনকি নামও ডাকা হয় না কোমলমতি এসব শিক্ষার্থীদের। এ ভাবেই দায়সারা ভাবে চলছে ভেড়ামারার ডিপি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়। যা দেখার বা ব্যবস্থা নেওয়ার কেউ নেই।

ভেড়ামারা শহর থেকে প্রায় ৩ কিলোমিটার পূর্বে ভেড়ামারা উপজেলার বাহিরচর ইউনিয়নের মসলেমপুর বাজার সংলগ্ন এলাকায় অবস্থিত ডিপি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়। গতকাল বুধবার সকাল ১১টা ১২ মিনিটে সরেজমিন বিদ্যালয়ে উপস্থিত হয়ে দেখা গেছে স্কুলের ভিন্ন চিত্র। স্কুলের কোমলমতি শিক্ষর্থীরা ক্লাসের বাহিরে এবং ভিতরে হৈই চৈই করতে ব্যাস্ত। ৫ জন শিক্ষকের স্থলে ৩ জন শিক্ষক এক রুমে বসে পারিবারিক আলাপে ব্যস্ত। কারোর কোন দিকে ভ্রুক্ষেপ নেই। ১০টা ৫০ মিনিট থেকে ১১টা ২৫ মিনিট পর্যন্ত শিক্ষকদের ক্লাশে থাকার কথা থাকলেও শিক্ষকরা কেন ক্লাশে নেই এ প্রশ্নের কোন জবাব দিতে পারেনি শিক্ষকরা।

৫ম শ্রেণীর ক্লাশে প্রবেশ করে দেখা যায় প্রায় ২০ জন শিক্ষার্থী ক্লাশে অবস্থান করছেন। শিক্ষার্থীদের কাছে জানতে চাওয়া হয় আজ কোন ক্লাশ হয়েছে কিনা। শিশু শিক্ষার্থীরা জানান, আজ কোন ক্লাশ হয়নি। এমন কি কোন শিক্ষক ক্লাশে এসেও কোন খোঁজ খবর নেননি। তাদের নামও ডাকা হয় নি। এমন ভাবেই চলছে এ বিদ্যাপীট।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, বিদ্যালয়ে ২৭০ জন শিক্ষার্থী রয়েছে। প্রধান শিক্ষক সহ এখানে শিক্ষক ৫ জন। এরমধ্যে ৩ জন মহিলা শিক্ষক। প্রধান শিক্ষক আনিসুর রহমান এবং ইনতাজ আলী স্কুলে না গিয়ে ফুটবল খেলার মাঠে অবস্থান করছেন। অন্য দিকে ৩ জন মহিলা শিক্ষক শামসুন নাহার, লাভলী ইয়াসমিন এবং উম্মে সালমা ক্লাশ বাদ দিয়ে এক রুমে বসে পারিবারিক আলাপে ব্যাস্ত সময় পার করছেন।

শিক্ষক লাভলী ইয়াসমিন জানান, আজ উপস্থিতি খুবই কম। যার কারনে শিক্ষার্থীদের নাম ডাকা হয় নি। নাম ডাকা হলেই শিক্ষার্থীরা পালিয়ে যায় এ কারনে আমরা নিয়ম করেছি স্কুল ছুটি দেওয়ার আগে নাম ডাকার। যাতে করে কোন শিক্ষার্থী স্কুল পালাতে না পারেন। বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আনিসুর রহমানের সাথে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি কোন সদুত্তর দিতে পারেননি।

ডিপি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় চলছে হ য ব র ল পরিবেশে। এমন বিষয়ে জানতে চাওয়া হয় ভেড়ামারা উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মাসুদ করিমের কাছে। তিনি জানান, অভিযোগ পেয়েছি। প্রয়োজনীয় তদন্ত শেষ করে বিধি মোতাবেক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

কাল ভোট, নিরাপত্তার চাদরে কুমিল্লা 

54

কুমিল্লা, ২৯ মার্চ : রাত পোহালেই শুরু হবে কুমিল্লা সিটি করপোরেশন (কুসিক) নির্বাচনের ভোটগ্রহণ। বৃহস্পতিবার সকাল ৮টা থেকে শুরু হয়ে এ ভোট চলবে বিকাল ৪টা পর্যন্ত। আজ বুধবার নগরীর ২৭টি ওয়ার্ডের ১০৩টি ভোট কেন্দ্রের ৬২৮টি বুথের জন্য ভোটের বাক্স পৌঁছানোর সকল প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয়। এছাড়া এ নির্বাচনকে সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ, নির্বিঘ্ন ও সকলের কাছে গ্রহণযোগ্য করতে নির্বাচন কমিশন পুরো নগরী নিরাপত্তার চাদরে ঢেকে ফেলেছে। নিযুক্ত করা হয়েছে পুলিশ-র্যাব, বিজিবি, আনসার-ভিডিপিসহ আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর ৫ সহস্রাধিক সদস্য।

এদিকে প্রচার-প্রচারণার শেষ দিনে গতকাল মঙ্গলবার প্রার্থীদের পক্ষে নগরীর কেন্দ্রস্থল কান্দিরপাড়সহ আনাচে-কানাচে ব্যাপক গণসংযোগ, লিফলেট বিতরণসহ স্লোগানে আর মিছিলে মুখরিত হয়ে উঠে বিভিন্ন এলাকা। তবে কমিশনের নির্দেশনার পর কেন্দ্রীয় নেতা/বহিরাগতরা কুসিক এলাকা ছেড়ে যাওয়ায় গতকাল মেয়র পদে দুই দলের প্রার্থী ও তাদের নেতা-কর্মীরা দিনভর গণসংযোগ করেন।

অদৃশ্য শঙ্কায় সীমা ও সাক্কু: নির্বাচনটা নৌকা বনাম ধানের শীষ প্রতীকের হলেও  প্রতীকের সঙ্গে যুক্ত হচ্ছে প্রার্থীর নিজস্ব ব্যক্তিত্ব আর পরিচিতিও, দলের অভ্যন্তরীণ বিভাজনও প্রভাবিত করতে চলেছে নির্বাচনকে। তাই অদৃশ্য শঙ্কায় রয়েছেন উভয় দলের প্রার্থী। আগামীকাল অনুষ্ঠেয় কুসিক নির্বাচনে বিএনপির মনোনয়নে নির্বাচন করছেন মনিরুল হক সাক্কু। তিনি কুসিকের প্রথম মেয়র। ২০১২ সালে এ সিটির প্রথম   নির্বাচনে জাতীয় রাজনীতির কারণে বিএনপি অংশগ্রহণ করেনি। তাই দলীয় সিদ্ধান্তের বাইরে গিয়ে তিনি ওই নির্বাচনে আওয়ামী লীগের সমর্থিত প্রার্থী সীমার বাবা আফজল খানের সঙ্গে লড়ে জিতেছিলেন। এবার তার সঙ্গে দলীয় প্রতীক নিয়ে লড়ছেন আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন পাওয়া আঞ্জুম সুলতানা সীমা। তারও রয়েছে স্থানীয় সরকারের নির্বাচিত প্রতিনিধি হয়ে ১৫ বছরের দায়িত্ব পালনের অভিজ্ঞতা। তবে মেয়র পদে কার্যত বড় দুই দলের প্রার্থীর মধ্যে লড়াই হবে হাড্ডাহাড্ডি- এমন কথা বলছেন নগরীর বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার ভোটাররা।

শেষ মুহূর্তে জটিল হচ্ছে ভোটের অঙ্ক: কুসিক নির্বাচন ঘিরে শেষ মুহূর্তে ভোটের অঙ্ক আরো জটিল হচ্ছে। সরেজমিন স্থানীয় রাজনৈতিক কর্মী থেকে শুরু করে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের সঙ্গে আলাপ করে এ চিত্র পাওয়া গেছে। সাধারণ মানুষের মতে, মেয়র পদে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি উভয় প্রার্থীর প্রচার-প্রচারণা ছিল প্রায় সমানে-সমান। তবে এবারের ভোটের অঙ্কের হিসাব শুধু একজন মেয়র নির্বাচিত করা নয়, এর ফল স্থানীয় রাজনীতির মানচিত্রেও বড় পরিবর্তন এনে দিতে পারে। এ সম্ভাবনা কিংবা আশঙ্কা ঘিরেই নির্বাচনের নেপথ্যের কুশীলবরা ভোটের অঙ্ক কষছেন চুলচেরা বিশ্লেষণ করেই। বিশেষ করে এ নির্বাচন উভয় প্রার্থী ও দলের জন্য এক অগ্নিপরীক্ষা হিসেবে সামনে চলে এসেছে।

সাক্কু ও সীমার বক্তব্য:বিএনপি প্রার্থী মনিরুল হক সাক্কু তার নেতা-কর্মীদের হয়রানি ও নির্বাচনী এলাকায় দলীয় নেতাদের প্রভাবের অভিযোগ তুলে মঙ্গলবার আবারও সুষ্ঠু নির্বাচনের দাবি জানিয়েছেন। তিনি সাংবাদিকদের বলেন, নির্বাচনকে গ্রহণযোগ্য করতে ইসি এ সিটিকে সেমি ক্যান্টনমেন্টের মতো করে হলেও নির্বাচন সুষ্ঠু করবে একথা বলেছে। সাক্কু বলেন, আমি নির্বাচন কমিশনের কাছে পুলিশ, র্যাব কিছুই চাই না। আমি শুধু চাই সিটির জনগণ যেন কেন্দ্রে গিয়ে নিশ্চিন্তে ও নির্বিঘ্নে ভোট দিতে পারে।

অপরদিকে আওয়ামী লীগের প্রার্থী আঞ্জুম সুলতানা সীমা বলেন, এখানে নির্বাচনের সুন্দর ও সুষ্ঠু পরিবেশ বিরাজ করছে। দলীয় নেতাদের প্রভাবের বিষয়ে তিনি বলেন, তার (সাক্কু) অভিযোগ সঠিক নয়। নৌকার পক্ষে গণজোয়ার দেখে তিনি বিভিন্ন অভিযোগ তুলে নির্বাচনকে বিতর্কিত করতে চান।

নৌকার প্রার্থীকে জাপার সমর্থন: কুসিক নির্বাচনের শেষ পর্যায়ে এসে আনুষ্ঠানিকভাবে নৌকার প্রার্থী সীমাকে সমর্থন দিয়েছে জাতীয় পার্টি (এরশাদ)। মঙ্গলবার বিকালে নগরীর লাগোয়া আলেখারচর এলাকার একটি হোটেলে সংবাদ সম্মেলনে এ সমর্থনের কথা জানান জাপা প্রেসিডিয়াম সদস্য এস.এম ফয়সাল চিশতি। এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জাপার কেন্দ্রীয় ভাইস চেয়ারম্যান ও কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা জাপার সভাপতি অধ্যাপক নুরুল ইসলাম মিলন এমপি, দলের চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা বেগম রওশন আরা মান্নান এমপি প্রমুখ।

গণসংযোগ: গতকাল আওয়ামী লীগ ও বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতাদের কাউকে কুসিক এলাকায় দেখা যায়নি। প্রচারণার শেষ দিনে আঞ্জুম সুলতানা সীমা স্থানীয় নেতা-কর্মীদের নিয়ে নগরীর বাখরাবাদ, গোবিন্দপুর, অশোকতলা, বিসিক শিল্পনগরী, মনোহরপুর, বাগিচাগাঁও, তালপুকুরপাড়, পালবাড়ি এলাকায় ভোট চেয়ে গণসংযোগ ও লিফলেট বিতরণ করেন। সন্ধ্যায় নৌকার পক্ষে কুমিল্লা ইজিবাইক মালিক-শ্রমিক ঐক্য পরিষদের বিশাল মিছিল বের করা হয়। এছাড়া বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ থেকে মিছিলে মিছিলে নগরীর বিভিন্ন এলাকা মুখরিত হয়ে ওঠে।

অপরদিকে বিএনপি প্রার্থী মনিরুল হক সাক্কু নগরীর রানীরবাজার, মনোহরপুর, দক্ষিণ চর্থা, রেইসকোর্স, ঠাকুরপাড়া এলাকায় গণসংযোগ করেন। বিকালে তিনি দলের নেতা-কর্মীদের নিয়ে নগরীর নানুয়ার দিঘীর পাড়স্থ বাসভবনে বৈঠক করেন।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর

পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবক নিহত 

68925

কুষ্টিয়া, ২৯ মার্চ : কুষ্টিয়ার মিরপুরে গোয়েন্দা পুলিশের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে রফিকুল ইসলাম রফিক (৩৮) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন।

পুলিশের দাবি, নিহত রফিকুল ডাকাত দলের সদস্য। তার বিরুদ্ধে কুষ্টিয়া ও রাজবাড়ী থানায় ডাকাতি, ছিনতাইসহ বিভিন্ন অপরাধের একাধিক মামলা রয়েছে। এসময় বন্দুকযুদ্ধে পুলিশের ৩ সদস্য আহত হয়েছে।

মঙ্গলবার মধ্যরাতে উপজেলার কুষ্টিয়া-মেহেরপুর সড়কের মশান কালিগাড়া ব্রিজের কাছে এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনাস্থল থেকে অস্ত্র গুলি ও ডাকাতির সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে।

রফিকুল ইসলাম রাজবাড়ী জেলার মাছপাড়া গ্রামের আজিজ শেখের ছেলে।

কুষ্টিয়া গোয়েন্দা পুলিশের ওসি ছাবিরুল ইসলাম দাবি করেন, কুষ্টিয়া-মেহেরপুর সড়কের কালিগাড়া ব্রিজের কাছে একদল ডাকাত মেইন সড়কে গাছ কেটে ডাকাতির প্রস্তুতি নিচ্ছে এমন খবর পেয়ে গোয়েন্দা পুলিশ সেখানে অভিযান চালায়। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ডাকাতদল পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছুঁড়ে। জবাবে পুলিশ ও পাল্টা গুলি চালায়। প্রায় ৩০ মিনিট ধরে চলা ‘বন্দুকযুদ্ধের’ একপর্যায়ে ডাকাতদল পালিয়ে যায়।

পরে রফিককে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করে মিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

ওসি জানান, ঘটনাস্থল থেকে ১টি এলজি, ১ রাউন্ড গুলি, ২টি হাসুয়া ও ডাকাতির সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে। এসময় বন্দুকযুদ্ধে পুলিশের ৩ সদস্য আহত হয়েছেন।

বুধবার সকালে লাশ কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে।

Share This:

এই পেইজের আরও খবর